প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মাশরাফির অনুপ্রেরণাতেই ফাইনালে উজ্জ্বল ছিলেন তামিম

নিজস্ব প্রতিবেদক : বিপিএলের এবারের আসরের ট্রফি গত ৮ জানুয়ারী ঘরে তুলেছে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। টুনার্মেন্টের প্রথম থেকেই কুমিল্লার পারফরর্মেন্স ছিলো অসাধারন। মাঝে কয়েকটি ম্যাচ হারতে হলেও দল কার্যত পথ হারায়নি তারা। তবে দল ফর্মে থাকলেও ফর্মে ছিলেন না আইকন ক্রিকেটার তামিম। কিন্তু ফাইনালের মত মহাগুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে তিনিই দলকে এনে দিয়েছেন জয়।

গত শুক্রবার ষষ্ঠ বিপিএলের ফাইনালে মাত্র ৬১ বলের মোকাবেলায় ১৪১ রানের মারকুটে ইনিংস খেলেন তামিম, যা উপর ভর করে দল পায় ১৭ রানের জয়। পুরো আসরে বড় ইনিংস খেলার জন্য সংগ্রাম করে ফাইনালে এসে এভাবে জ্বলে উঠা তামিম জানালেন, ভালো করার প্রেরণা পেয়েছেন জাতীয় দলের ওয়ানডে অধিনায়ক ও রংপুর রাইডার্সের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজার কাছ থেকেই।

তামিম বলেন, ‘সত্যি কথা বলতে পুরো টুর্নামেন্টেই আমি খুব চিন্তিত ছিলাম। তবে মাশরাফি ভাইয়ের কৌশল ব্যবহার করেছিলাম। উনি সব সময় বলেন যে- আমি জিতব, আমি জিতব।’

আর এই কারণে নিজের অর্জিত বিপিএল শিরোপার কৃতিত্বও দিলেন বাংলাদেশের সর্বকালের অন্যতম সেরা ক্রিকেটারকে, ‘ওনার মনে কী থাকে, সেটা জানি না। পুরো বিপিএলে আমার একই কৌশল ছিল। তার থেকেই অনুপ্রাণিত বলতে পারেন। এই শিরোপা জেতার পুরো কৃতিত্ব মাশরাফি ভাইয়ের।’

ফাইনালের মত বড় মঞ্চে ভালো করতে পেরে নির্ভার তামিম। জানালেন, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটেও এই ইনিংস সাহস জোগাবে। তিনি বলেন, ‘অবশ্যই নির্ভার। আমি সব সময় চেয়েছি কাপ জিততে, কিন্তু পারিনি। এমন ম্যাচে সেঞ্চুরি পেয়ে দলকে জেতানো বিশাল ব্যাপার। ঢাকার মতো বোলিং আক্রমণ অনেক আন্তর্জাতিক দলেও নেই। তাই এই জায়গার পারফরম্যান্স আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পারফর্ম করতে কাজে দেবে।’

সংবাদমাধ্যমের সাথে আলাপকালে তামিম আরও বলেন, ‘আজকের দিনের জন্য বাংলাদেশিরা পুরো ম্যাচ নিয়ন্ত্রণ করেছে। এটাই গুরুত্বপূর্ণ। এর থেকে বেশি কিছু চাওয়ার আর কিছু হতে পারে না। আমার ইনিংস দেখে জুনিয়ররা আমার সঙ্গে চ্যালেঞ্জ নিতে পারে। তারা যদি আমাকে টপকে যেতে পারে, সেটাই হবে বাংলাদেশের জন্য ভালো ব্যাপার।’

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত