প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ইইউ, কানাডা, মেক্সিকোর স্টিল ও অ্যালুমিনিয়ামের ওপর মার্কিন শুল্কারোপ

লিহান লিমা: যুক্তরাষ্ট্রের বৃহত্তর বাণিজ্যিক সহযোগি কানাডা, মেক্সিকো ও ইউরোপিয় ইউনিয়নের স্টিল এবং অ্যালুমিনিয়ামের ওপর অবশেষে শুল্কারোপ করল মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রশাসন। এর ফলে শুক্রবার মধ্যরাত থেকে বাণিজ্য শুল্কের ধকল পোহাতে হবে যুক্তরাষ্ট্রের এই তিন মিত্রকে।

বৃহস্পতিবার বাণিজ্যমন্ত্রী উইলবুর রোজ সাংবাদিকদের জানান, ‘আমদানিকৃত স্ট্রিলের ওপর ২৫ ভাগ এবং অ্যালুমিনিয়ামের ওপর ১০ ভাগ করশুল্ক আরোপ করে হয়েছে।’
তিনি বলেন,‘ আমরা একভাবে কানাডা ও মেক্সিকো এবং আরেকভাবে ইইউর সঙ্গে সমঝোতা করার লক্ষ্যে কাজ করে যাব। কানাডা ও মেক্সিকোর সঙ্গে উত্তর আমেরিকা মুক্ত বাণিজ্য চুক্তি-নাফটা নিয়ে দীর্ঘ আলোচনা চলছে। ইউরোপের সঙ্গেও কিছুটা অগ্রগতি হয়েছে তবে তা যথেষ্ট নয়।’

এদিকে ইউরোপিয়ান কমিশনের প্রেসিডেন্ট জেন-ক্লদ কাঙ্কার এই সংবাদকে ‘অগ্রহণযোগ্য, বদ্ধ বাণিজ্যিক নীতি, এবং দীর্ণ পদক্ষেপ’ বলে অভিহিত করেন। তিনি আরো বলেন, ‘ এটি বিশ্ব বাণিজ্যের জন্য একটি খারাপ দিন। কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই যুক্তরাষ্ট্রকে এর উপযুক্ত জবাব দেয়া হবে।’ আর এই শুল্কারোপ যুক্তরাষ্ট্রের উত্তরের প্রতিবেশীদের সঙ্গে করা নাফটা চুক্তিরও বিরোধী। বিশ্ববাণিজ্য যুদ্ধের এই সময়ে ট্রাম্পের এই শুল্কারোপ আটলান্টিকের উভয় পাড়েই বিরুপ প্রভাব ফেলবে।

বৃহস্পতিবার সকালে চীন জানায়, তারা যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাণিজ্যিক উত্তেজনা এড়িয়ে চলতে চায়। সেই সঙ্গে বেইজিং মার্কিন পণ্যের ওপর শুল্ক কমানোর সিদ্ধান্তের বিষয়টিও বিবেচনা করার কথা জানায়। যদিও দুই দিন আগেই মঙ্গলবার হোয়াইট হাউস চীনের ওপর বাণিজ্যিক নিষেধাজ্ঞা আরোপের হুমকি দিয়েছিল। চীনও ওইদিন পাল্টা আঘাত হিসেবে যুক্তরাষ্ট্রের ওপর কোটি কোটি ডলারের শুল্কারোপের হুমকি দেয়। তবে বুধবার বেইজিংয়ে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তারা যে কোন প্রকার বাণিজ্যিক যুদ্ধ এড়ানোর বিষয়ে মত দেন।

মার্চে ট্রাম্প বিশ্বজুড়ে স্ট্রিল এবং অ্যালুমিনিয়ামের ওপর শুল্কারোপের ঘোষণা দেন। তিনি বলেন, ‘দশকের পর দশক ধরে আমাদের শিল্প অন্যায্য বিদেশি বাণিজ্যিক সমঝোতার শিকার। এটি বন্ধ করতে হবে।’ আল জাজিরা, এএফপি।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত