শিরোনাম
◈ শুক্রবার কমছে সয়াবিন তেলের দাম ◈ ইসরায়েলি হত্যাযজ্ঞে চুপ থেকে বিএনপি-জামায়াত গাজায় গণহত্যার পক্ষে অবস্থান নিয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী ◈ বঙ্গবন্ধু জাতিসংঘেরও ১৫ বছর আগে শিশু আইন প্রণয়ন করেন: আইনমন্ত্রী  ◈ বিপিএলের ফাইনাল ম্যাচের সময় চূড়ান্ত করলো বিসিবি ◈ সাবেক স্বামীর দেওয়া আগুনে দগ্ধ চিকিৎসক লতা মারা গেছেন ◈ সরকারি হাসপাতালে বিনামূল্যে ঔষধ-পত্র ও চিকিৎসা সামগ্রী প্রদানের উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী ◈ বিদ্যুতের দাম বাড়ছে ৮.৫০ শতাংশ, ফেব্রুয়ারিতেই কার্যকর ◈ ২ দিনের রিমান্ড শেষে ভিকারুননিসার শিক্ষক মুরাদ কারাগারে ◈ বর্তমানে মত প্রকাশের স্বাধীনতার ছিটেফোটাও নেই: রিজভী ◈ রমজানে আল-আকসা খোলা রাখতে ইসরায়েলের প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের আহ্বান

প্রকাশিত : ১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ০৩:৪৮ রাত
আপডেট : ১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ০৩:৪৮ রাত

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

বানানের জগতে অরাজকতার জন্ম দিলেন কারা!

সাইফুদ্দিন আহমেদ নান্নু

সাইফুদ্দিন আহমেদ নান্নু: বাংলা একাডেমির কর্তারা হয়তো এই একাডেমি প্রতিষ্ঠার লক্ষ্য, উদ্দেশ্যগুলোই পড়েননি। তারা তাদের মূল কাজ ছেড়ে সবচেয়ে জরুরি এবং বড় কর্ম, ধ্যান-জ্ঞান হিসেবে আঁকড়ে ধরেছেন বাংলা একাডেমি পদক দেওয়া এবং একুশের বইমেলার আয়োজন করাকে। অথচ এ দুটো কাজের একটিও বাংলা একাডেমি প্রতিষ্ঠার মূল লক্ষ্য, উদ্দেশ্যের মধ্যে নেই।  
আরেকটা কাজ তারা সোৎসাহে করেন, সেটি হলো বানান সংস্কার বা শুদ্ধিকরণ বটিকার চাষাবাদ।

এই চাষাবাদ প্রজেক্ট বাংলা বানানে শৃঙ্খলা প্রতিষ্ঠার চেয়ে অরাজকতারই জন্ম দিয়েছে কিছু মুখ চেনা হাতুড়ে ডাক্তার দিয়ে। যা বানানের জগতে অরাজকতার জন্ম দিয়েছেন। বড় সাহিত্যিক, বড় প্রাবন্ধিক হলেই বানানে হাত দেবার অধিকার, যোগ্যতা অর্জিত হয় না। বানান সংস্কার করার এখতিয়ার, যোগ্যতা কেবল ভাষাবিজ্ঞানী, ভাষা তাত্ত্বিক, ব্যাকরণ বিশারদদের। বাংলা একাডেমির বানান সংস্কার কমিটিতে ভাষাবিজ্ঞানী, ভাষাতাত্ত্বিক পেতে হলে মাইক্রোস্কোপ লাগে।

বাংলা একাডেমির উচিত তার প্রতিষ্ঠার মূল লক্ষ্য নিয়ে কাজ করা। একুশের বইমেলা আয়োজনের আর সাহিত্য পুরস্কার প্রদানের দায়িত্ব সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের হাতে ছেড়ে দেওয়া। কিন্তু জান গেলেও তারা তা ছাড়বে না, ছাড়লে যে  দমবন্ধ হয়ে মারা যাবে। সম্ভবত এই প্রতিষ্ঠানটি তার গঠনতন্ত্র মেনে পূর্ণাঙ্গ কমিটিও করেনি প্রায় দুই যুগ। বছরের পর বছর এডহক কমিটি দিয়েই সবকিছু ম্যানেজ করে চলছে। ফেসবুকে ১২-২-২০২৪ প্রকাশিত হয়েছে। 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়