শিরোনাম

প্রকাশিত : ০৬ অক্টোবর, ২০২২, ১২:৫৫ দুপুর
আপডেট : ০৬ অক্টোবর, ২০২২, ১২:৫৫ দুপুর

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

জন্ম দিনে দোয়া চাইলেন স্পিকার

স্পিকার

মনিরুল ইসলাম: জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর আজ  বৃহস্পতিবার ৫৬ তম  জন্মদিন। ১৯৬৬  সালের এই দিনে জন্মগ্রহণ করেন দেশের প্রথম এই নারী স্পিকার। 

স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী  জন্মদিনের শুভেচ্ছা বিনিময় কালে মুঠোফোনে বলেন, আমার জন্য দোয়া করবেন। পারিবারিক ভাবে জন্মদিনের কেক কাটা হয়নি। আমি কেক কাটাকে নিরুৎসাহিত করি।

তিনি বলেন, তবে ছেলে- মেয়ে দেশে থাকলে তারা কেক কাটে। এবার জন্মদিনের প্রথম প্রহরে কেক কাটা হয়নি। 

স্পিকার বলেন, আমার জন্য দোয়া করবেন। আমি যেনো সুস্থতার সাথে আমার ওপর অর্পিত দায়িত্ব সুচারু ভাবে পালন করতে পারি।

ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী নোয়াখালীর চাটখিলের সিএসপি অফিসার ও বাংলাদেশ সরকারের সাবেক সচিব রফিকুল্লাহ চৌধুরীর কন্যা।  আর মা  প্রফেসর নাইয়ার সুলতানা ছিলেন ঢাকা কলেজের অধ্যক্ষ ও বাংলাদেশ পাবলিক সার্ভিস কমিশনের সদস্য।

২০১৩ সালের এপ্রিলে শিরীন শারমিন চৌধুরী নবম জাতীয় সংসদে নারী স্পিকার হিসেবে নির্বাচিত হন। ৪৬ বছর বয়সে তিনি সর্বকনিষ্ঠ স্পিকার হিসেবে সাবেক স্পিকার ও বর্তমান রাষ্ট্রপতি অ্যাডভোকেট আব্দুল হামিদের স্থলাভিষিক্ত হন।

এর আগে তিনি বাংলাদেশ সরকারের মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ছিলেন। ২০১৮ সালের ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন এবং ২০১৯ সালের ৩ জানুয়ারি পুনরায় জাতীয় সংসদের স্পিকার হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করেন।

শিরীন শারমিন চৌধুরী ১৯৮৩ সালে ঢাকা বোর্ডে মানবিক বিভাগ থেকে এসএসসি পরীক্ষায় সম্মিলিত মেধা তালিকায় প্রথম স্থান অধিকার করেন। ১৯৮৫ সালে এইচএসসিতে একই বোর্ডে মানবিক বিভাগে সম্মিলিত মেধা তালিকায় দ্বিতীয় স্থান অর্জন করেন।

১৯৮৯ সালে তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এলএলবি ও ১৯৯০ সালে একই বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এলএলএম-এ ফার্স্ট ক্লাস ফার্স্ট হন। শিরীন শারমিন একজন কমনওয়েলথ স্কলার। ২০০০ সালে তিনি যুক্তরাজ্যের এসেক্স বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইনে পিএইচডি লাভ করেন। তার গবেষণার বিষয়বস্তু ছিলো সাংবিধানিক আইন ও মানবাধিকার। 

এলএলএম পাসের পর তিনি ১৯৯২ সালেই বাংলাদেশ বার কাউন্সিলে তালিকাভুক্ত আইনজীবী হিসেবে যোগদান করেন। বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টে ১৫ বছর অ্যাডভোকেট হিসেবে কাজ করেন।

নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে শিরীন শারমিন চৌধুরী সংরক্ষিত নারী আসনে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন এবং মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেন। তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য। 

এর আগে তিনি বাংলাদেশ সরকারের মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ছিলেন। ২০১৮ সালের ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি রংপুর-২ আসন থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। ২০১৯ সালের ৩ জানুয়ারি টানা তৃতীয়বারের মতো স্পিকার  নির্বাচিত হন।

ড. শিরীন ৯ সেপ্টেম্বর ২০১৪ কমনওয়েলথ পার্লামেন্টারি অ্যাসোসিয়েশনের চেয়ারপারসন নির্বাচিত হন। তিনি সফলতার সাথে তিন বছর মেয়াদের এ দায়িত্ব পালন করেন।

 ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর স্বামী সৈয়দ ইশতিয়াক হোসাইন ফার্মাসিউটিক্যাল কনসালটেন্ট। দুই সন্তানের জননী ড. শিরীন শারমিনের মেয়ে লামিসা শিরীন হোসাইন ও ছেলে সৈয়দ ইবতেশাম রফিক হোসাইন যুক্তরাষ্ট্রে পড়াশোনা করেন।

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়