শিরোনাম
◈ কক্সবাজার থেকে ৫০ বাসে ফিরবেন আটকে পড়া পর্যটকরা ◈ টানা তিন দিন দেশে ব্রডব্যান্ড ও মোবাইল ডাটা বন্ধ থাকায় বিপাকে ফ্রিল্যান্সাররা ◈ বান্দরবান থমথমে, বেড়াতে গিয়ে ২ শতাধিক পর্যটক আটকা ◈ ছুটি মঙ্গলবারের পরও বাড়বে কি না, যা বললেন জনপ্রশাসনমন্ত্রী ◈ নগদ টাকা তুলতে বিপাকে গ্রাহকরা, এটিএম বুথে টাকার সংকট ◈ কমল পেঁয়াজ-মরিচ-আলুর দাম, বাড়ল পামওয়েলের ◈ কমপ্লিট শাটডাউন’ কর্মসূচি ৪৮ ঘন্টার আল্টিমেটাম দিয়ে স্থগিত : নাহিদ ইসলাম ◈ কোটা সংস্কারের প্রজ্ঞাপন জারি ◈ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ‘নিয়ন্ত্রণে’ মোহাম্মদপুর ◈ আমিরাতে বাংলাদেশ সরকারের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখিয়ে রাস্তায় দাঙ্গা উস্কে দেওয়ার অভিযোগে ৫৭ জন বাংলাদেশির জেল

প্রকাশিত : ১৫ মে, ২০২৪, ০৭:০৭ বিকাল
আপডেট : ১৬ মে, ২০২৪, ০২:৫৭ দুপুর

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

পিআইএসহ রাষ্ট্রায়ত্ত সব কোম্পানি বিক্রি করে দিচ্ছে পাকিস্তান

ইমরুল শাহেদ: [২] পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী দপ্তরসূত্রে জানা গেছে, শিগগিরই বেসরকারি খাতে স্থানান্তর করা হবে এমন সব সরকারি কোম্পানির একটি প্রাথমিক তালিকাও প্রস্তুত করা হয়েছে ইতোমধ্যে। তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে পাকিস্তান ইন্টারন্যাশনাল এয়ারলাইনস (পিআইএ), চারটি বিদ্যুৎ উৎপাদন কোম্পানি, ১০টি বিদ্যুৎ সরবরাহ কোম্পানি, নিউইয়র্কের ম্যানহাটানে অবস্থিত বিলাসবহুল রুজভেল্ট হোটেল এবং দুটি বিমা কোম্পানিসহ ২৫টি প্রতিষ্ঠান। সূত্র: ডন

[৩] তবে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, সকল সরকারি সম্পদকে বেসরকারিকরণ করা হলেও কিছু কৌশলগত সম্পদ রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন থাকবে। সরকারের এ নতুন পরিকল্পনা ২০২৪ সাল থেকে ২০২৯ সাল পর্যন্ত পাঁচ বছরে বাস্তবায়ন সম্পন্ন করা হবে। 

[৪] পাকিস্তানের অর্থনৈতিক অবস্থার উন্নতির জন্যই সরকারিভাবে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়। দেশটি ইতোমধ্যে ডলারের মজুত ন্যূনতম স্বাভাবিক অবস্থায় ফেরাতে বিস্তর চেষ্টা-তদ্বির শেষে গত বছর আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের (আইএমএফ) কাছ থেকে ৩০০ কোটি ডলার ঋণ নেয় পাকিস্তান। সেই সঙ্গে আইএমএফের বিভিন্ন পরামর্শও মেনে চলার প্রতিশ্রুতি দেয় সরকার।

[৫] সরকারি বিভিন্ন কোম্পানি ও অর্থনৈতিক প্রতিষ্ঠানের বিগত কয়েক বছরের পণ্য-পরিষেবা উৎপাদন ও অর্জিত মুনাফার সার্বিক অবস্থা যাচাই শেষে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আগেও দেশটির সরকারি কোম্পানিগুলোকে বেসরকারি খাতে স্থানান্তরের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে, কিন্তু সেসবের অধিকাংশই সফল হয়নি। মূলত রাজনৈতিক কারণে টানা লোকসানে থাকা সত্ত্বেও এই কোম্পানিগুলোকে টিকিয়ে রাখছে ইসলামাবাদ।

[৬] আইএমএফ থেকে ঋণের দ্বিতীয় কিস্তির জন্য সোমবার ইসলামাবাদে পাকিস্তানের সরকারি কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। আইএমএফ প্রতিনিধিদের সঙ্গে সেই বৈঠকের পরই মঙ্গলবার বেসরকারিকরণের বিবৃতি এলো প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর থেকে। সম্পাদনা: এম খান

আইএস/আইকে/এনএইচ

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়