শিরোনাম
◈ টেক্সাসে বন্দুকধারীর হামলায় শিক্ষার্থীসহ নিহত ১৫ ◈ সারাদেশে ছাত্রদলের ২দিনের বিক্ষোভ কর্মসূচি ঘোষণা ◈ আবারও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান তেদ্রোস ◈ ছাত্রলীগের হামলার প্রতিবাদে নারায়ণগঞ্জে ছাত্রদলের বিক্ষোভ ও মশাল মিছিল ◈ ঢাবিতে ছাত্রলীগের হামলার প্রতিবাদে জবি ছাত্রদলের মশাল মিছিল ◈ স্মারক স্বর্ণ মুদ্রার দাম ৪ হাজার টাকা বাড়লো কেন্দ্রীয় ব্যাংক ◈ হজ ফ্লাইট ৫ জুন শুরু ◈ সর্বজনীন পদ্মা সেতুতে ওঠার আগে অপপ্রচারকারীদের ক্ষমা চাওয়া উচিত: তথ্যমন্ত্রী ◈ সিরিয়ায় সামরিক অভিযানের ইঙ্গিত দিলেন এরদোগান ◈ হাতিরঝিলে ওয়াটার ট্যাক্সি ও বাণিজ্যিক স্থাপনা উচ্ছেদের নির্দেশ

প্রকাশিত : ২১ জানুয়ারী, ২০২২, ০৬:৫৯ বিকাল
আপডেট : ২১ জানুয়ারী, ২০২২, ১০:১৭ রাত

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

[১] শিক্ষার্থীদের জীবন নিয়ে খেলা বন্ধ করুন : আ স ম রব

শাহীন খন্দকার: [২] শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে অনশনরত মৃত্যুপথযাত্রী শিক্ষার্থীদের নিয়ে ‘ক্ষমতার অপব্যবহার’ ও পরিকল্পিত ‘রাজনৈতিক খেলা’ বন্ধ করার আহ্বান জানিয়েছেন ডাকসুর সাবেক ভিপি ও জেএসডি সভাপতি আ স ম আবদুর রব। শুক্রবার গণমাধ্যমে পাঠানো বিবৃতিতে তিনি বলেন, সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদের পদত্যাগের দাবিতে অনশনরত শিক্ষার্থীরা তিলে তিলে মৃত্যুর দিকে এগোচ্ছে।

[৩] তীব্র শীতে খোলা আকাশের নিচে দেশের সম্ভাবনাময় কোমলমতি শিক্ষার্থীরা অভুক্ত অবস্থায় জ্বর ও প্রচণ্ড ঠাণ্ডায় মৃত্যুর দিকে ধাবিত হবে, আর সরকার বা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ রাজনৈতিক দাবা খেলার নির্মম কৌশল নিয়ে ব্যস্ত থাকবে, তা এ দেশের সংগ্রামী ছাত্রসমাজ ও দেশবাসী কোনোক্রমেই মেনে নেবে না।

[৪] শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয়ে আন্দোলনরত ছাত্রদের ওপর পুলিশের লাঠিপেটা, শটগানের গুলি এবং সরকার সমর্থিত ছাত্রলীগের হামলা আজকের এই পরিস্থিতির জন্য দায়ী উল্লেখ করে আ স ম রব, রাজপথে সংগ্রামরত ছাত্রদের ওপর পুলিশ এবং সরকারি ছাত্র সংগঠনের পরিকল্পিত হামলা, আক্রমণ এবং নিষ্ঠুরতা সরকারের রাজনৈতিক ‘ব্যবস্থার’ অংশ হয়ে পড়েছে।

[৫] অতীতেও নিরাপদ সড়ক এবং কোটাবিরোধী আন্দোলনে ছাত্রদের ওপর হেলমেট বাহিনীর হামলা হয়েছে, কিন্তু কোনোটারই বিচার হয়নি। সংশ্লিষ্টদের অবশ্যই হামলার অপরাধের জন্য আইনের আওতায় আনতে হবে। তা না হলে গোটা সমাজ ব্যবস্থাটাই চরম বিপদগ্রস্ত হয়ে পড়বে।

[৬] শিক্ষার্থীদের জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে সরকার বা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ কেউ তাদের পাশে না দাঁড়িয়ে বরং তাদের বিপক্ষে অবস্থান নিচ্ছে। আমাদের সংগ্রামী ও সাহসী সন্তানেরা ন্যায়সঙ্গত দাবিতে মৃত্যুঝুঁকি নিয়ে আমরণ অনশনরত থাকবে আর সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ নীরব দর্শকের ভূমিকা পালন করবে, এটা সভ্যতার পরিচায়ক নহে। এটা আমাদের জাতির জন্য চরম লজ্জাজনক।

[৭] তিনি বলেন, মৃত্যুর মুখোমুখি শিক্ষার্থীদের নিয়ে রাজনীতি খেলার সময় এটা নয়। অনশনকারী শিক্ষার্থীদের কিছু হলে সরকারকেই সম্পূর্ণ দায়ভার বহন করতে হবে। অবিলম্বে শিক্ষার্থীদের ন্যায়সংগত দাবি-দাওয়া মেনে নিয়ে তাদের প্রাণ রক্ষার সর্বাত্মক উদ্যোগ গ্রহণে সরকারের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানাচ্ছি।

 

  • সর্বশেষ