প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কারাগারের খাবারই দেওয়া হচ্ছে শাহরুখপুত্র আরিয়ানকে !

ডেস্ক রিপোর্ট: সোনার চামচ মুখে নিয়ে জন্মেছেন। বড় হয়েছেন প্রাসাদোপম ‘মান্নত’-এ। পড়াশোনা করেছেন বিদেশের বিশ্ববিদ্যালয়ে। কিন্তু রাজকীয় সেই ছবি বদলে গেল এক রাতেই। প্রমোদতরীর মাদক পার্টিতে যোগ দেওয়ার কারণে জীবনের মোড় ঘুরে গেল এবার অন্যদিকে। বলছিলাম, বলিউড বাদশা শাহরুখ খানের বড় ছেলে আরিয়ানের কথা। মাদককাণ্ডে গ্রেপ্তার হয়ে বিলাসবহুল বাড়ি ছেড়ে তিনি এখন সোজা নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর (এনসিবি) হাজতে। আপাতত সেই রুদ্ধদ্বার কক্ষেই দিন কাটছে শাহরুখপুত্রের।

ভারতের একাধিক আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম জানিয়েছে, আগামীকাল বৃহস্পতিবার পর্যন্ত নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর (এনসিবি) হেফাজতে থাকবেন শাহরুখপুত্র। তবে তারকাপুত্র হলেও এনসিবির কাছে কোনো ছাড় পাচ্ছে না তিনি। অন্যান্য অভিযুক্তদের মতোই তাকে আটকে রাখা হয়েছে। দেওয়া হচ্ছে না কোনো বিশেষ সুবিধাও।

জানা গেছে, হেফাজতে থাকা অবস্থায় এনসিবির মেসে তৈরি খাবারই খাচ্ছেন আরিয়ান। বাড়ি থেকে খাবার আনার অনুমতি এখনো মেলেনি। জিজ্ঞাসাবাদের সময় কাগজের থালায় স্থানীয় রেস্তোরাঁয় তৈরি লুচি, তরকারি এবং বিরিয়ানি খেতে দেওয়া হয়েছিল আরিয়ানকে।

এর আগে গত সোমবার (৪ অক্টোবর) আদালতে তোলা হয়েছিল আরিয়ানকে। ওইদিন তার জামিন নামঞ্জুর করেন আদালত। এরপর থেকে এনসিবির হেফাজতে রয়েছেন শাহরুখপুত্র।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে এনসিবি জানিয়েছে, মাদককাণ্ডে গ্রেপ্তার হয়েছেন শাহরুখপুত্র আরিয়ান খান। জিজ্ঞাসাবাদে মাদক সেবনের কথা স্বীকারও করেছেন তিনি। জানিয়েছেন বিভিন্ন চাঞ্চল্যকর তথ্য।

সূত্র আরও জানায়, যেভাবে লুকিয়ে মাদক নিয়ে যাওয়া হয়েছিল, তাতে রীতিমতো অবাক তদন্তকারীরা। স্যানিটারি প্যাড, ওষুধের বাক্স, জামাকাপড়, অন্তর্বাসের সেলাইয়ের মধ্যেও মাদক রাখা হয়েছিল। মূলত খুব সহজে এগুলো সন্ধান যেন না পাওয়া যায় তাই এ বুদ্ধি করেছিল আরিয়ানরা।

এ ঘটনায় আরও কারা জড়িত, কারা মাদক সরবরাহ করেছিল তদন্তকারীরা তা খতিয়ে দেখছে বলেও জানিয়েছে এনবিসি।

উল্লেখ্য, গত শনিবার (২ অক্টোবর) রাতে মুম্বাই থেকে গোয়ার উদ্দেশে একটি বিলাসবহুল ক্রুজ যাত্রা করে। ক্রুজ মুম্বাই থেকে ছাড়ার কিছুক্ষণের মাঝেই শুরু হয় পার্টি। ওই পার্টি থেকে মাদক সেবনের অপরাধে আটক করা হয় আরিয়ানকে। তারপর টানা ১৬ ঘণ্টা জেরার পর রোববার দুপুরে গ্রেপ্তার করা হয় আরিয়ান ও তার দুই বন্ধুকে। পরে আদালতের তরফে তিন অভিযুক্তকেই ৭ অক্টোবর পর্যন্ত হেফাজতের নির্দেশ দেওয়া হয়।

এদিকে, ছেলের জামিন নামঞ্জুর হওয়ায় বলিউড বাদশার পাশে দাঁড়িয়েছেন তার অনেক সহকর্মীা। শাহরুখকে ফোন করেছেন দীপিকা পাড়ুকোন, করণ জোহর, কাজল আগারওয়াল, রানি মুখার্জিসহ অনেকে। অন্যদিকে আরিয়ানের গ্রেপ্তারের খবরে টুইট করে শাহরুখের পাশে দাঁড়িয়েছেন অনেকে।

আরিয়ানের গ্রেপ্তারের পর ‘মান্নাত’র সামনে ভিড় না জমাতে অনুরোধ করেছেন শাহরুখ খানের জনসংযোগ কর্মীরা। কারণ হিসেবে তারা বলছেন, বাড়ির বাইরে সাংবাদিকরা ভিড় করেছেন। এর মধ্যে তারকারা মান্নাতে আসলে সাময়িক অসুবিধা হতে পারে। সার্বিক দিক বিবেচনা করে মান্নার সামনে ভিড় না করার অনুরোধ করেছেন তারা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত