প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

৫ মিনিটের ব্যবধানে দুই ডোজ টিকা পুশ

নিউজ ডেস্ক : শনিবার (১৫ সেপ্টেম্বর) দুপুরে বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এ ঘটনা ঘটে।

পরপর দুই ডোজ টিকা দেওয়ায় দুশ্চিন্তায় পড়েছেন ভুক্তভোগী যুবক জাহেদুল ইসলাম (৩৪)। তিনি বিয়ানীবাজার উপজেলার মাথিউরা ইউনিয়নের নালবহর গ্রামের মৃত আবদুল মুক্তাদিরের ছেলে। ঢাকাপোস্ট

এ ঘটনায় পর্যবেক্ষণের জন্য ভুক্তভোগী যুবককে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা।

ভুক্তভোগী জাহেদুল ইসলাম বলেন, এক মাস আগে সিনোফার্মের করোনার প্রথম ডোজ গ্রহণ করি। শুক্রবার দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার জন্য মোবাইলে বার্তা আসে। শনিবার দুপুরে মাকে নিয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে টিকার দ্বিতীয় ডোজ গ্রহণ করতে যাই। টিকা গ্রহণ শেষে শার্টের বোতাম লাগানোর সময় টিকাদান কর্মী আবার বসতে বলেন। এ সময় তিনি কোনো কথা না শুনেই একই হাতে আবার টিকা পুশ করেন।

এ ব্যাপারে বিয়ানীবাজার উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মোয়াজ্জেম আলী খান চৌধুরী বলেন, ওই ব্যক্তি টিকা গ্রহণের পর হাসপাতালে থাকাবস্থায় কোনো কিছু বলেননি। বিকেলে আমরা খবর পেয়েছি। এরপর একজন চিকিৎসককে তার বাড়িতে পাঠিয়ে খোঁজখবর নেওয়া হয়েছে। তাকে পর্যবেক্ষণে রাখার জন্য আমরা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে এসেছি। এখন পর্যন্ত তিনি সুস্থ আছেন।

তিনি বলেন, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের টিকাদানকর্মীরা বলছেন এ ধরনের কোনো ঘটনা ঘটেনি। তারপরও তিনি দুই ডোজ দেওয়া হয়েছে দাবি করায় বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে দেখা হচ্ছে। এতে কারো কোনো গাফিলতি থাকলে অবশ্যই বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে সিলেটের সিভিল সার্জন প্রেমানন্দ মন্ডলের মোবাইল ফোনে কল দিলে তিনি রিসিভ করেননি।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত