প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নিরাপত্তার স্বার্থে নারীদের ঘরে থাকতে নির্দেশ দিয়েছে তালিবান

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: আফগানিস্তানের কর্মক্ষেত্রে নারীদের উপস্থিতির ক্ষেত্রে আরোপিত নিষেধাজ্ঞা সাময়িক হবে বলে জানিয়েছেন তালিবান মুখপাত্র জবিউল্লাহ মুজাহিদ। মঙ্গলবার কাবুলে এক বিস্তৃত সংবাদ সম্মেলনে একথা জানান তিনি। এতে তিনি বিদেশি কূটনীতিক ও ত্রাণ কর্মীদের প্রশংসার পাশাপাশি বিরোধীদের অস্ত্র সমর্পণের আহ্বান জানিয়েছেন। তবে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতি কঠোর বার্তা দিয়ে বলেছেন, দেশটির প্রত্যাহারের সময়সীমা ৩১ আগস্টের পর আর বাড়ানো হবে না।

কাবুলের সংবাদ সম্মেলনে নারীদের উপর আফগানিস্তানের বিভিন্ন এলাকায় বিধিনিষেধ আরোপের বিষয়ে জানতে চাইলে তালিবান মুখপাত্র জবিউল্লাহ মুজাহিদ বলেন, নিরাপত্তা বাহিনীকে একবার প্রশিক্ষণ দেওয়া শেষ হলে এই সমস্যার নিরসন হবে। তিনি বলেন, নারীদের সঙ্গে কিভাবে আচরণ করতে হবে, কিভাবে কথা বলতে হবে তা নিয়ে তালেবান যোদ্ধাদের প্রশিক্ষণ নেই। আর সেই কারণে নারীদের কিছুদিন বাড়িতে থাকতে বলা হচ্ছে বলে জানান তিনি।

জবিউল্লাহ মুজাহিদ জানান, বাড়িতে থাকলেও নারীরা তাদের বেতন পেতে থাকবেন আর একটা পদ্ধতি তৈরি করতে পারলেই তাদের কাজে যোগ দিতে বলা হবে।

তালিবান মুখপাত্র আরও বলেন, আফগান নাগরিকদের দেশত্যাগে উৎসাহিত করছে যুক্তরাষ্ট্র। আর সেই কারণেই তাদের বিমানবন্দরে যাওয়া ঠেকাচ্ছে তালিবান। তিনি বলেন, ‘আমেরিকানদের বলছি দয়া করে আপনাদের নীতি বদলান, আফগানদের দেশ ছাড়তে উৎসাহ দেবেন না।’

মার্কিন বাহিনী বিপজ্জনকভাবে বিমানবন্দরের ভিড় সামাল দিচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন জবিউল্লাহ মুজাহিদ। তিনি বলেন, ‘আমরা আফগান নাগরিক আটকে দিচ্ছি কারণ সেখানে ভিড় বাড়ছে। সেখানে মানুষের পদপিষ্ট হয়ে মারা পড়ার আশঙ্কা রয়েছে।’

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত