প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] পদ্মাসেতুর পিলারের দূরত্ব ১৫০ মিটার, স্বাভাবিকভাবে ধাক্কা লাগার কথা নয়: মো. শফিকুল ইসলাম

সমীরণ রায়:[২] গত সোমবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে সেতুর ১০ নম্বর পিলারে ধাক্কা দেয় রো রো ফেরি বীরশ্রেষ্ঠ জাহাঙ্গীর। ফেরিটি মাত্র একদিন আগে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া থেকে পদ্মাসেতু এলাকার নৌরুটে এসেছে।

[৩] সংশ্লিষ্টরা মনে করেন, পদ্মাসেতুতে মোট ৪২টি পিলার। এরমধ্যে ৪০টি পিলার নদীতে। নির্মাণ করা প্রতিটি পিলারে ছয়টি করে পাইলিং করা হয়েছে। যার দৈর্ঘ্য গড়ে প্রায় ১২৭ মিটার। ফলে পিলারের মধ্যে দীর্ঘ দূরত্ব থাকায় সেতুতে ধাক্কা লাগার কথা নয়। চার হাজার টনের বড় বড় জাহাজ ধাক্কা মারলে সেতুর কিছু হবে না। তবুও বার বার ধাক্কা লাগার ঘটনাটি রহস্যজনক।

[৪] পদ্মা বহুমুখী সেতু প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক মো. শফিকুল ইসলাম বলেন, সেতুতে ধাক্কা লাগার ঘটনাটি রহস্যজনক। সেতুর পিলারের দূরত্ব ১৫০ মিটার বা ৪৯২ ফুট। ফেরির এর থেকে অনেক ছোট। যমুনা সেতুর পিলারের দূরত্ব ১০০ ফুট। তারপরও ধাক্কা লাগে না। গৌমতী সেতুর নিচ দিয়ে বিদেশি জাহাজ চলাচল করে তারপরও ধাক্কা লাগে না। তাহলে পদ্মাসেতুর পিলারে ফেরির ধাক্কা লাগছে। মনে হচ্ছে, অদক্ষ চালক ও লঞ্চ বা ফেরির ফিটনেস নেই। বিষয়টি নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী ও কেবিনেট সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলামসহ সংশ্লিষ্টদের জানানো হয়েছে।

[৫] সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর সাবেক অতিরিক্ত প্রধান প্রধান প্রকৌশলী ও কাঁচপুর, মেঘনা ও গোমতী সেতু নির্মাণ প্রকল্পের পরিচালক আবু সালেহ মো. নুরুজ্জামান বলেন, গৌমতী সেতুর পিলারের দূরত্ব ৮৭ দশমিক ৫ মিটার। কাঁচপুর সেতুর পিলারের দূরত্ব মাত্র ৫৬ মিটার। কখনো ধাক্কা লাগার কথা উঠেনি। তাই পদ্মাসেতুর পিলারে ধাক্কা লাগার বিষয়টি তদন্ত হওয়া দরকার।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত