প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

হাসপাতালের বিল পরিশোধ না করতে পারায় অসহায় বাবার ফোন

নিউজ ডেস্ক : রাজধানীর উত্তরার একটি হাসপাতালের অতিরিক্ত বিল পরিশোধ না করতে পারায় সদ্যজাত সন্তান ও স্ত্রীকে বাড়ি নিয়ে যেতে ছাড়পত্র দেয়নি কর্তৃপক্ষ। পরে আর কোনো উপায় না পেয়ে স্ত্রী ও সদ্যজাত সন্তানকে উদ্ধার করতে আশিক (২৪) জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯-এ ফোন করেন। ফোন পেয়ে সঙ্গে সঙ্গে ঘটনাস্থলে গিয়ে তার স্ত্রী ও সন্তানকে উদ্ধার করা হয়।

বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯-এর পরিদর্শক আনোয়ার সাত্তার ঢাকা পোস্টকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, গতকাল বিকাল সাড়ে চারটায় আশিক নামে একজন কলার ঢাকার উত্তরার ৮ নম্বর সেক্টরের ইউনিক হাসপাতাল থেকে ফোন করে জানান, তিনি পেশায় একজন রিকশাচালক। মঙ্গলবার তার গর্ভবতী স্ত্রীকে তিনি হাসপাতালে ভর্তি করেছেন। সেদিন বিকেলে তার স্ত্রীর নর্মাল ডেলিভারি হয় এবং একটি কন্যা সন্তান জন্ম হয়। পরে বুধবার বিকালে স্ত্রী-সন্তানকে বাসায় নিতে চাইলে তাকে ১৮ হাজার টাকা বিল পরিশোধ করতে বলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

স্ত্রী ও সন্তানকে একদিন হাসপাতালে রেখে এবং নর্মাল ডেলিভারির জন্য এত টাকা বিল কেন এল, তার কারণ কর্তৃপক্ষের কাছে জানতে চান। এছাড়া তিনি এত টাকা দিতে অসম্মতি জানান। তখন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাকে জানায়, বিল পরিশোধ না করলে তিনি তার স্ত্রী-সন্তানকে নিয়ে যেতে পারবেন না। শেষে তিনি কোনো উপায় না পেয়ে ৯৯৯ এ ফোন দেন।

আনোয়ার সাত্তার বলেন, ৯৯৯ থেকে সংবাদ পেয়ে উত্তরা পূর্ব থানা পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে যায়। পরে উত্তরা পূর্ব থানার সহকারী পরিদর্শক ফারুক আহমেদ ৯৯৯-কে ফোনে জানান, তিনি সেখানে গিয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলেন। কলার রিকশাচালক আশিকের আর্থিক অবস্থা বিবেচনায় ন্যুনতম বিল নেওয়ার অনুরোধ জানান। পরে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ৩ হাজার ৫০০ টাকা বিল নিয়ে কলার এবং তার স্ত্রী সন্তানকে ছাড়পত্র দেয়। ঢাকাপোষ্ট

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত