প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ভারত ও চীনকে ভালবেসে পাশেই থাকতে চান ট্রাম্প, জানালো হোয়াইট হাউস

রাশিদ রিয়াজ : [৩] হোয়াইট হাউজের প্রেস সেক্রেটারি সচিব কালেলি ম্যাকেনি সাংবাদিকদের বলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ভারত ও চীন দু’দেশের মানুষকেই ভালবাসেন, তাই দুই দেশের মধ্যে শান্তির পরিবেশ বজায় রাখার জন্য চেষ্টা করতে চান। ভারত ও চীনের দ্বৈরথ সম্পর্কে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প এমনটাই ভাবেন, বলে তার পক্ষে বিষয়টি জানালেন হোয়াইট হাউসের প্রেস সচিব।

[৪] গত বুধবার মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও বলেন ভারত ও তার দেশের মধ্যে ভাল বোঝাপড়া রয়েছে। তার আগে হোয়াইট হাউসের অর্থনৈতিক উপদেষ্টা ল্যারি কুডলো-ও ভারতকে যুক্তরাষ্ট্রের মহান মিত্র হিসেবে বর্ণনা করে বলেন, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী একে অপরের ভাল বন্ধু। লাদাখ সীমান্তে ভারত-চীন উত্তেজনা চলছে, তখনও ট্রাম্প ভারতের সমর্থনেই কথা বলেছিলেন, চীনের সমালোচনা করেছিলেন। আর ভারতও যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সুর মিলিয়ে জানিয়ে দিয়েছে দক্ষিণ সাগর কারো একার নয়।

[৫] এখন ট্রাম্প বলেছেন, ‘আমি ভারতের মানুষকে ভালবাসি এবং চীনের মানুষকেও ভালবাসি। তাই দু’দেশের সাধারণ মানুষের জন্যই দু’দেশের মধ্যে শান্তি বজায় রাখার জন্য যা প্রয়োজন, তাই করতে চাই।’ তবে সরাসরি নয় ট্রাম্পের এক বক্তব্য সাংবাদিকদের জানান হোয়াইট হাউসের প্রেস সেক্রেটারি।

[৬] দিন কয়ে আগে ইউরোপে মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা রবার্ট ও’ব্রায়ান সাংবাদিকদের বলেন, ভারতের সঙ্গে চীন অত্যন্ত আগ্রাসী আচরণ করছে। ভারত একটি গণতান্ত্রিক রাষ্ট্র এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মিত্রদেশ। আমাদের ভাল ও দৃঢ় সম্পর্ক তৈরি হয়েছে। গত কয়েক মাসে কোভিড ইস্যুতে চীনকে অব্যাহতভাবে আক্রমণ করেছেন ট্রাম্প।

[৭] অথচ হোয়াইট হাউস থেকে ট্রাম্পের বার্তায় উঠে এল দু’দেশের জন্যই তিনি একই রকম ভাবে উদ্বিগ্ন এবং সে জন্যই শান্তিরক্ষায় সাহায্য করতে চান।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত