প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিসিএসে ৮ বছরে প্রার্থী বেড়ে আড়াই গুণ, সরকারি চাকরিতে সুযোগ-সুবিধা বাড়াকে মূল কারণ হিসেবে দেখছেন বিশেষজ্ঞরা

রাজীব রায়হান : বিসিএসে গত ৯ বছরে ১০টি বিসিএসে অংশগ্রহণকারী প্রার্থীর সংখ্যা বেড়েছে আড়াই গুণ। তবে, গত তিন বছরে এই আগ্রহ বেড়েছে সবচেয়ে বেশি। তদবির ছাড়া চাকরি পাওয়া এবং সরকারি চাকরিতে সুযোগ-সুবিধা অনেক বাড়াই এ আগ্রহের মূল কারণ বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা। কালের কণ্ঠ

সরকারি কর্ম কমিশন জানায়, ৪১তম বিসিএস পরীক্ষায় আবেদনের সময়সীমা শেষ হয়েছে গত ৪ জানুয়ারি। এবার বিসিএসের ইতিহাসের সর্বোচ্চ আবেদন জমা পড়েছে প্রায় পৌনে পাঁচ লাখ। এর আগে ৪০তম বিসিএসে আবেদন করেছিলেন চার লাখ ১২ হাজার ৫৩২ প্রার্থী। তবে পিএসসি শুধু চিকিৎসকদের জন্য আয়োজন করেছিল ৩৯তম বিশেষ বিসিএস পরীক্ষার। সেখানেও ৩৭ হাজার ৭১৩ জন আবেদন করেছিলেন। ৩৮তম বিসিএসে আবেদন ছিল তিন লাখ ৪৬ হাজার ৪৪৬টি। ৩৭তম বিসিএসে আবেদন করেছিলেন দুই লাখ ৪৩ হাজার ৪৭৬ জন। এছাড়া ৩৬তম বিসিএসে দুই লাখ ১১ হাজার ৩২৬ জন, ৩৫তম বিসিএসে দুই লাখ ৪৪ হাজার ১০৭ জন, ৩৪তম বিসিএসে দুই লাখ ২১ হাজার ৫৭৫ জন এবং ২০১২ সালের ৩৩তম বিসিএসে আবেদন করেছিলেন এক লাখ ৯৩ হাজার ৫৯ জন। আর মুক্তিযোদ্ধা কোটায় ৩২তম ছিল বিশেষ বিসিএস। সেবার আবেদন করেছিলেন ২৬ হাজার ৪৩৭ জন।

এদিকে, পিএসসির চেয়ারম্যান ড. মোহাম্মদ সাদিক বলেন, সরকারি চাকরিতে আগের চেয়ে সুযোগ-সুবিধা অনেক বেড়েছে। বিসিএসে উত্তীর্ণ হয়ে যারা ক্যাডার পদ পাবেন না, তাঁদের জন্য নন-ক্যাডারে যাওয়ার সুযোগ রয়েছে। এছাড়া বর্তমান কমিশন সর্বোচ্চ চেষ্টা করছে স্বচ্ছতা নিশ্চিত করতে।

পিএসসি জানায়, ২০০১ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত ক্যাডার ও নন-ক্যাডার পদে পিএসসির সুপারিশ পেয়েছিলেন ১৬ হাজার ৯০ জন। তাদের মধ্যে ছিলেন ক্যাডার পদে ১২ হাজার ৭১৯ জন এবং নন-ক্যাডার পদে তিন হাজার ৩৭১ জন। ২০০৭-০৮ সালে ক্যাডার পদে তিন হাজার ৬৪৬ জন এবং নন-ক্যাডার পদে ৫১৯ জন অর্থাৎ মোট চার হাজার ১৬৫ জন সুপারিশ পেয়েছিলেন। ২০০৯ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত মোট সুপারিশ পেয়েছেন ৬৬ হাজার ২৫৬ জন। তাদের মধ্যে ক্যাডার পদে ৩১ হাজার ৩৩৩ জন এবং নন-ক্যাডার পদে ৩৫ হাজার ৯২৩ জন। বর্তমানে ৪১তম বিসিএসের আবেদন গ্রহণ শেষ হয়েছে। লিখিত পরীক্ষা শেষ হয়েছে ৪০তম বিসিএসের। ৩৯তম বিশেষ বিসিএসের সুপারিশ করা হয়েছে। আর ৩৮তম বিসিএসের মৌখিক পরীক্ষা চলছে, ফেব্রুয়ারির শেষে ফল প্রকাশিত হওয়ার কথা।

সর্বাধিক পঠিত