প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] চট্টগ্রামে বাস চাপায় পঙ্গুত্ব বরণকারী সাইফুরের দায়ের করা মামলা দ্রুত তদন্তের দাবিতে মানববন্ধন

রিয়াজুর রহমান : [২] ভাড়া নৈরাজ্যের প্রতিবাদ করায় বিআরটিসি বাস চাপায় পঙ্গুত্ব বরনকারী বাস যাত্রী সাইফুর রহমানের দায়ের করা মামলা দ্রুত তদন্তের দাবি জানিয়ে মানববন্ধন করছেন ভুক্তভোগীর পরিবার।

[৩] সোমবার (২৪ মে) বিকালে চট্টগ্রাম প্রেসক্লাব চত্ত্বরে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে এ ঘটনায় দোষি বাস ড্রাইভারকে গ্রেপ্তারের দাবীও জানানো হয়।

[৪] মানববন্ধনে সাইফুরের ছেলে মোহাম্মদ ইব্রাহিম জানান, গত ১ এপ্রিল টেক্সটাইল মোড় থেকে বিআরটিসি বাসে উঠেন তার বাবা। নিয়ম অনুযায়ী যাত্রীদের কাছ থেকে ৬০ শতাংশ ভাড়া নেয়ার কথা। কিন্তু বাসের হেলপার যাত্রীদের কাছে শত ভাগ ভাড়া আদায় করছিলেন। ভাড়ার বিষয় নিয়ে তার এক যাত্রী ও তার বাবার সাথে হেলপারের কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে তার বাবাকে চলন্ত বাস থেকে ধাক্কা দিয়ে সড়কে ফেলে দেন। এ সময় তার বাবার ডান পায়ের ওপর দিয়ে বাসের চাকা তুলে দেয় চালক। প্রথমে তার বাবাবে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। পরে ঢাকার শেরে বাংলা জাতীয় ইনস্টিটিউট হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।

[৫] চিকিৎসকরা অনেক চেষ্টা করেও তার বাবার ডান পা রক্ষা করতে পারেনি। গত কয়েকদিন আগে পা কেটে ফেলা হয়।

[৬] ইব্রাহিম বলেন, তার বাবা মাঝিরঘাটে দৈনিক মজুরের কাজ করতো। আর্থিক টানাপোড়েনে তাদের সংসার চলে। এক পা হারিয়ে তিনি এখন হাসপাতালে বেডে পড়ে আছেন। ব্যয় বহুল চিকিৎসার খরচ চালাতে তাদের হিমশিম খেতে হচ্ছে।

[৭] এ ব্যাপারে গত ২ এপ্রিল কোতোয়ালি থানায় একটি মামলা দায়ের দায়ের করেন আহত সাইফুর রহমানের স্ত্রী হাসিনা বেগম (৪০)। ইতিমধ্যে চালক ও হেলপার জামিনে বের হয়ে গেছেন। বিআরটিসি কর্তৃপক্ষের সাথে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলেও তারা কোন সাড়া দেয়নি বলে মানববন্ধনে অভিযোগ করেন ভুক্তভোগী পরিবার।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত