প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ৫ লাখ রোহিঙ্গার তালিকা হারিয়ে ফেলেছে মিয়ানমার

বাশার নূরু: [২] প্রত্যাবাসনের লক্ষ্যে মিয়ানমারকে যাচাই বাছাইয়ের জন্য প্রায় ৫ লাখ রোহিঙ্গার একটি তালিকা দেওয়া হয়েছিল। সেই তালিকা হারিয়ে ফেলেছে দেশটি। পরে আবার তালিকা দেওয়া হয়েছে।

[৩] চলতি বছরের ১৮ মার্চ মিয়ানমারের কাছে ৪ লাখ ৯২ হাজার ৩০২ জন রোহিঙ্গার তালিকা হস্তান্তর করা হয়। এই তালিকা ঢাকার মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূতের কাছে দেওয়া হয়েছিল। মিয়ানমার এই ৫ লাখ রোহিঙ্গার তালিকা প্লেনযোগে ইয়াঙ্গুন পাঠায়। মিয়ানমার প্লেনযোগে এই তালিকা ইয়াঙ্গুনে পাঠিয়েছিল, তা থাইল্যান্ড হয়ে ইয়াঙ্গুনে পৌঁছানোর কথা। তবে সেই তালিকা থাইল্যান্ড থেকে খোয়া যায়।

[৪]চলতি মাসের শুরুর দিকে মিয়ানমার বাংলাদেশকে জানায়, ৪ লাখ ৯২ হাজার ৩০২ জন রোহিঙ্গার তালিকা থাইল্যান্ড থেকে খোয়া গেছে। এরপর নতুন করে আবার তালিকা চায় মিয়ানমার।

[৫] মিয়ানমারের এই বার্তা পাওয়ার পর বাংলাদেশের পক্ষ থেকে আবার তালিকা দেওয়া হয়েছে। তবে এই তালিকা এবার দেওয়া হয় মিয়ানমারে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাস থেকে।

[৬] সূত্র জানায়, ৫ দফায় প্রায় ৬ লাখ রোহিঙ্গার তালিকা মিয়ানমারের কাছে হস্তান্তর করা হয়। ২০১৮ সালের ফেব্রুয়ারিতে প্রথম দফায় ৮ হাজার ৩২ জনের তালিকা হস্তান্তর করা হয়। দ্বিতীয় দফায় ২২ হাজার ৪৩২ জন, তৃতীয় দফায় ২৫ হাজার ৪৭ জন, চতুর্থ দফায় ৫০ হাজার ৫০৬ জন ও পঞ্চম দফায় ৪ লাখ ৯২ হাজার ৩০২ জন রোহিঙ্গার তালিকা হস্তান্তর করা হয়। এর মধ্য থেকে যাচাই করে মাত্র ১০ হাজার ৩৪ জনকে ফেরত নেওয়ার আগ্রহ প্রকাশ করেছে দেশটি।

[৭] মিয়ানমার সেনাবাহিনীর নির্যাতনের শিকার হয়ে ২০১৭ সালের ২৫ আগস্টের পর বাংলাদেশে পালিয়ে আসে বহু রোহিঙ্গা। এরপর থেকে গত তিন বছরে ১১ লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে।
বাংলানিউজ

সর্বাধিক পঠিত