প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] করোনা প্রতিরোধে গঠিত সমন্বয় সেলের সভায় স্থানীয় সরকার

আনিস তপন : [২] পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম আশা প্রকাশ করে বলেন, সংশ্লিষ্ট সকল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে সার্বক্ষণিক যোগাযোগের মাধ্যমে কোভিড মোকাবেলায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।

[৩] সমন্বয় সেলের করণীয় নির্ধারণে সোমবার সচিবালয়ে স্থানীয় সরকার বিভাগের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত সভায় এ কথা বলেন তিনি। বৈঠকে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলামের সভাপতিত্ব করেন।

[৪] প্রসঙ্গত, সারাদেশে করোনা ভাইরাসের বিস্তাররোধে দায়িত্ব পালনের জন্য স্থানীয় সরকার বিভাগের অধীনে একটি সমন্বয় সেল গঠন করেছে সরকার।

[৫] সভায় তাজুল ইসলাম বলেন, স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে ঘোষিত কোন নির্দিষ্ট এলাকা লকডাউন করা হলে সেইসব এলাকায় মানুষের কাছে খাদ্য, ঔষধসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্র সরবরাহ করার জন্য স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের অধীনে সকল প্রতিষ্ঠান ঠিকমত দায়িত্ব পালন করছে কি না তা পর্যবেক্ষণ করবে এই সেল।

[৬] মন্ত্রী বলেন, গঠিত এই সমন্বয় সেল সারাদেশের তথ্য সংগ্রহ করবে এবং প্রয়োজনীয় দিকনির্দেশনা প্রদান করবে। এছাড়া করোনা ভাইরাসের সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে সময়ে সময়ে এই কমিটি স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়, সিটি কর্পোরেশনসহ সংশ্লিষ্ট সকলের সঙ্গে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখবে।

[৭] মন্ত্রী বলেন, একক প্রচেষ্টায় প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের বিস্তার রোধ করা সম্ভব নয়, এজন্য সরকারের সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়সহ সাধারণ মানুষের সম্মিলিত অংশগ্রহণ অত্যন্ত জরুরি। সবার নিজ নিজ জায়গা থেকে দায়িত্ব পালন করলে এই মহামারী থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব।

[৮] লকডাউন এলাকায় স্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিত করতে টেলিমেডিসিন সার্ভিস এর উপর গুরুত্ব আরোপ করে স্থানীয় সরকার মন্ত্রী বলেন, মানুষকে ঘরে রাখতে হলে তাদের প্রয়োজনীয় চাহিদা সরবরাহ করতে হবে।

[৯] এসময় স্থানীয় সরকার বিভাগের সিনিয়র সচিব হেলালুদ্দীন আহমদসহ মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

[১০] উল্লেখ্য, গত ২৩ শে জুন করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে স্থানীয় সরকার বিভাগের অর্পিত দায়িত্ব সঠিকভাবে পালনের জন্য অতিরিক্ত সচিব মো. জহিরুল ইসলামকে আহ্বায়ক করে ১৫ সদস্যের একটি সমন্বয় সেল গঠন করা হয়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত