প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

পাহাড়ধসের আশঙ্কা, ৩ নম্বর সতর্কসংকেত

ডেস্ক রিপোর্ট : কক্সবাজারে ভারি বর্ষণ অব্যাহত রয়েছে। জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় ২৭০ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। বৃষ্টির পানি নামতে না পারায় বিভিন্ন স্থানে দেখা দিয়েছে জলাবদ্ধতা। নামতে শুরু করেছে পাহাড়ি ঢল। এতে ভূমিধসের আশঙ্কা করছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। এ পরিস্থিতিতে কক্সবাজার ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্কতা সংকেত দেওয়া হয়েছে।আমাদের সময়

জানা গেছে, মৌসুমি বায়ু সক্রিয় থাকার পাশাপাশি উত্তর বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট সঞ্চারনশীল মেঘমালার কারণে কক্সবাজার, চট্টগ্রাম, মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্কতা সংকেত দেখিয়ে যেতে বলেছে আবহাওয়া অফিস। এর প্রভাবে মঙ্গলবার থেকে কক্সবাজারের ওপর দিয়ে ভারি বর্ষণ অব্যাহত রয়েছে। বৃষ্টির পানি নামতে না পারায় কক্সবাজার জেলার বিভিন্নস্থানে জলাবদ্ধতা দেখা দিয়েছে। কক্সবাজার শহরের প্রধান সড়কের ওপর দিয়ে বুধবার দুপুর থেকে হাঁটু পরিমাণ পানি রয়েছে। বিভিন্ন প্লাস্টিকজাত পণ্য আর বোতলের কারণে আশপাশের নালাগুলো বন্ধ হয়ে যাওয়ায় পানি বাঁকখালী নদীতে নামতে প্রতিবন্ধকতা হচ্ছে বলে পরিবেশবাদী সংগঠন এনভায়রনমেন্ট পিপলসের প্রধান নির্বাহী রাশেদুল মজিদ জানান।

কক্সবাজার পৌরসভার প্যানেল মেয়র মাহবুবুর রহমান চৌধুরী বলেন, বৃষ্টির পানি দ্রুত নামতে না পারায় শহরের বেশ কিছু এলাকায় জলাবদ্ধতা দেখা দিয়েছে। অনেকের বাসাবাড়ি আর ব্যবসা প্রতিষ্ঠানেও বৃষ্টির পানি প্রবেশ করেছে। তবে পৌরসভার পরিচ্ছন্নকর্মীরা পানি যাতে দ্রুত নেমে যায় সে জন্য নালা-নর্দমা পরিষ্কার করে যাচ্ছেন।

কক্সবাজারের সহকারী আবহাওয়াবিদ আবদুর রহমান জানিয়েছেন, গত ২৪ ঘণ্টায় ২৭০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করেছে কক্সবাজার আবহাওয়া অফিস। অব্যাহত বর্ষণের ফলে ভূমিধসের আশঙ্কা করা হচ্ছে।

কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন বলেন, ভারি বর্ষণের ফলে পাহাড় ধসের আশঙ্কা থাকায় ঝুঁকিপূর্ণ এলাকায় বসবাসরতদের নিরাপদ স্থানে সরে যেতে মাইকিং করতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত