শিরোনাম
◈ প্রাইভেটকারের ওপর গার্ডার: ক্রেনের চালক ও ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে মামলা ◈ গার্ডার চাপায় নিহতদের ময়নাতদন্ত হবে সোহরাওয়ার্দীর মর্গে ◈ উত্তরায় দুর্ঘটনা: শিশু জাকারিয়া জীবিত ছিল আধাঘণ্টা ◈ পুলিশের উদ্দেশ্যই ছিল ছাত্রলীগের ছেলেদের মারবে: এমপি শম্ভু ◈ রাজধানীতে ক্রেন থেকে রড পড়ে ৫ পথচারী আহত ◈ চকবাজার ও উত্তরার ঘটনায় শোক জানিয়ে তদন্তের দাবি ফখরুলের ◈ মানবাধিকারকর্মীদের কথা শুনলেন জাতিসংঘের মিশেল ব্যাচেলেট ◈ উত্তরায় ক্রেন দুর্ঘটনা: বেঁচে রইলেন শুধু নবদম্পতি ◈ খায়রুনকে লাথি মেরে সেই রাতে বাইরে যান স্বামী ◈ উত্তরায় প্রাইভেট কারের উপর ফ্লাইওভারের গার্ডার, নিহত ৫ (ভিডিও)

প্রকাশিত : ২৯ জুন, ২০২২, ১২:৫৩ রাত
আপডেট : ২৯ জুন, ২০২২, ০৬:২০ বিকাল

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

ছবিটি রুচিবিকৃতি মনে হতে পারে, নেপথ্যে নিদারুণ সত্যাশ্রয়ী ইতিহাস

ছবিটির চিত্রকর একজন ইতালিয়ান

সালেহ্ বিপ্লব: ডান কাঁখালে দুগ্ধপোষ্য সন্তান, নারীটি জেলখানার গারদের ভেতরে থাকা এক বৃদ্ধ বন্দিকে স্তন্যপান করাচ্ছেন। পরম মমতায় বৃদ্ধের পিঠে হাতও রেখেছেন তিনি। আবার সতর্ক দৃষ্টিতে নজর রাখছেন, কেউ দেখে ফেলে কি না! ছবিটি বিক্রি হয়েছে ৩ কোটি ইউরোতে। ছবিটি শুধু ছবি নয়, ইতিহাস। সাকসেসফুল ফ্লো

ছবিতে যে বৃদ্ধ কারাবন্দি, তাকে আমরণ অনশন দণ্ড দেওয়া হয়েছিলো। না খেয়ে খেয়েই একদিন তিনি মরে যাবেন। তার অপরাধ, ক্ষুধার জ¦ালায় এক টুকরা রুটি চুরি করেছিলেন। ঘটনা ফ্রান্সের, রাজা চতুর্দশ লুই তখন ক্ষমতায়। ডেইলি স্টার, জাম্বিয়া 

ছবির নারী সেই বৃদ্ধের একমাত্র কন্যা। আর মেয়েই শুধু জেলখানায় বাবাকে দেখতে যেতে পারতেন, তাও দিনে একবার। তবে তাকে এমনভাবে সার্চ করে ভেতরে যেতে দেওয়া হতো, যাতে তিনি লুকিয়েও কোনো খাবার নিতে পারতেন না বাবার জন্য। মিডিয়াম ডটকম 

চার মাস পর কর্তৃপক্ষ বিস্ময়ের সঙ্গে খেয়াল করলো, বৃদ্ধ রীতিমতো সুস্থ আছেন। ওজনও কমেনি! খাদ্যপানীয় ছাড়া এটা কীভাবে সম্ভব! কর্তারা সিদ্ধান্ত নিলেন তদন্ত করার। টুইটার

এরপর যখন মেয়েটি তার বাবাকে দেখতে এলো, দূর থেকে নজর রাখলেন জেলখানা ও আইনের কর্তাব্যক্তিরা। আর সেদিনই ঘটনাটা প্রকাশ পেলো। আর এই ঘটনা ভীষণভাবে নাড়া দিলো কর্মকর্তাদের চিন্তা-চেতনায়। বাবার জন্যে মেয়ের এতো দরদ দেখে তারা এতোটাই আপ্লুত হলেন যে, বৃদ্ধকে মুক্ত করেন দিলেন। ফেসবুক 

ঐতিহাসিক ঘটনাটি নিয়ে ছবিটি এঁকেছেন কেরুভাজ্জিও, ইতালীর বিখ্যাত চিত্রকর। আসল নাম মাইকেলেঞ্জোলো মেরিসি দ্য কেরুভাজ্জিও। ছবিটি পরে আরো অনেকেই এঁকেছেন, তবে কেরুভাজ্জিওর চিত্রকর্মটির মতো প্রাণবন্ত নয় সেগুলো। উইকিপিডিয়া

এই চিত্রটি তুলে ধরেছে নারীর সহানুভূতি ও মমতার কথা। নারীর এতো গভীর আবেগ ও নিঃস্বার্থ অবদান পুরুষরা সাধারণত দেখেও না দেখার ভান করে। বুঝেও না বোঝার ছল করে, এড়িয়ে যায়।

  • সর্বশেষ