শিরোনাম

প্রকাশিত : ২৪ জুন, ২০২২, ০১:৪৫ রাত
আপডেট : ২৪ জুন, ২০২২, ১১:৩৩ দুপুর

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

সবার জীবন কখনোই সমতলে, সরল রেখায় চলে না

খুজেস্তা নূর-ই নাহারিন

খুজেস্তা নূর-ই নাহারিন: সবার জীবন কখনোই সমতলে, সরল রেখায় চলে না। কারো কারো জীবন উত্থান পতনে নানা প্রতিকূলতায় বন্ধুর পথ পারি দিয়ে তবেই এগোতে হয়। যখনই জীবনে অপ্রত্যাশিত কোন দুঃখজনক ঘটনা  ঘটে, সময় আমাদের বিরুদ্ধাচারন করে, আমরা সৃষ্টিকর্তার কাছে আহাজারি করে প্রশ্ন করি, ‘আমিই কেন’?

এমনই এক মাকে যখন প্রশ্ন করা হল ‘শারীরিকভাবে সীমাবদ্ধ বা ভিন্ন ভাবে সক্ষম বিশেষ শিশুর জন্ম নিয়ে আপনার জীবনে নিশ্চয়ই অনেক কষ্ট আছে’? মা স্মিত হেসে উত্তর দিলেন, ‘সৃষ্টিকর্তা যাদের বিশ্বাস করেন যাদের উপর আস্থা রাখেন তাঁদের ঘরেই এমন শিশুকে পাঠান। কেননা কোন না কোন কারণে এই শিশুটির পৃথিবীতে আগমন অত্যাবশ্যক ছিল আর মা হিসেবে তিনি আমাকেই নির্বাচন করেছেন’। বেহেশতে সমস্ত আত্মা নাকি সৃষ্টিকর্তা একসাথে সৃষ্টি করেছেন। আত্মাদের পৃথিবীতে পাঠানোর সময় অত্যন্ত ভয়ার্ত কণ্ঠে যখন তাঁরা প্রশ্ন করেন, ‘পৃথিবীতে আমাদের সাথে কে থাকবে, কে আমাদের পথ দেখাবে’? 

সৃষ্টিকর্তা তখন তাঁদের অভয় দিয়ে বলেন, ‘ভয় পেও না, সেখানেও একজন ফেরেশতা অহর্নিশ তোমাদের সঙ্গে থাকবে, তোমাদের ভালো-মন্দ দেখভাল করবে আর তাঁর নাম হচ্ছে মা’। যেসব বাবা-মা’রা  বিশেষ শিশু নিয়ে কখনো সৃষ্টিকর্তাকে কখনো নিজেকে  দোষারোপ করছেন অবিরত প্রশ্নবাণে জর্জরিত করছেন, উত্তর খুঁজার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন, কোন অপরাধের শাস্তি ভেবে কষ্ট পাচ্ছেন তাঁদের মূলত সৃষ্টিকর্তা ভালবেসে বেছে নিয়েছেন নিষ্পাপ অক্ষম বিশেষ এই শিশুটির দেখ ভালের জন্য। বিশেষ শিশুরা কিছুতেই অভিশাপ নয় কারণ সৃষ্টিকর্তার দান কখনোই অভিশাপ হতে পারে না। যদি সৃষ্টিকর্তায় বিশ্বাস করি তাঁর প্রতিটি সিদ্ধান্ত আর ইচ্ছাকে সম্মান করা অবশ্যক বলে মনে করি। অতএব পিতা-মাতার ভালবাসার সন্তান বিশেষ শিশু এবং তাঁদের পরিবারকে নিশ্চয়ই তিনি অনেক বেশি ভালবাসেন। ফেসবুক থেকে 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়