শিরোনাম

প্রকাশিত : ২৫ জানুয়ারী, ২০২৩, ১২:২৮ রাত
আপডেট : ২৫ জানুয়ারী, ২০২৩, ১২:২২ দুপুর

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

চীনের একটি শহরের তাপমাত্রা মাইনাস ৫৩ ডিগ্রি, ডিম ভাঙলেই হয়ে যাচ্ছে বরফ

ছবি: সংগৃহীত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: চীনের সবচেয়ে উত্তরের শহর মোহেতে রেকর্ড সংরক্ষণ শুরুর পর থেকে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা পরিলক্ষিত হয়েছে। রাশিয়ার সীমান্তঘেষা হেইলংজিয়াং প্রদেশে অবস্থিত মোহে শহরটি ‘চীনের উত্তর মেরু’ হিসেবে পরিচিত। বিবিসি

গত রবিবার স্থানীয় আবহাওয়া কেন্দ্র সকাল ৭টায় মোহের তাপমাত্রা রেকর্ড করে ‘মাইনাস ৫৩ ডিগ্রি’ সেলসিয়াস। এর আগে শহরটিতে ‘মাইনাস ৫২.৩ ডিগ্রি’ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছিল ১৯৬৯ সালে। 

তবে এই তাপমাত্রা এখনো চীনের সর্বনিম্ন তাপমাত্রার রেকর্ড স্পর্শ করতে পারেনি। ২০০৯ সালে চীনের স্বায়ত্তশাসিত অঞ্চল ইনার মঙ্গোলিয়ার গেনহে শহরে তাপমাত্রা রেকর্ড হয় ‘মাইনাস ৫৮ ডিগ্রি’। 

মোহে শহরটি তীব্র শীতের সঙ্গে আগে থেকেই পরিচিত। বছরের এই সময়ের শহরটির গড় তাপমাত্রা থাকে ‘মাইনাস ১৫ ডিগ্রি’। 

সংবাদমাধ্যম চায়না ডেইলি জানায়, চীনের সবচেয়ে বেশি শীত থাকা শহর হিসেবে এটি পরিচিত। এর শীতকাল ‘সাধারণত আট মাস স্থায়ী হয়’। ফলস্বরূপ, ‘উত্তর মেরু’ হিসেবে বরফ এবং তুষার পার্ক এবং স্কিইং ভেন্যু হিসেবে সঙ্গে সারা বছর শহরটিতে পর্যটকদের আনাগোনা থাকে। এখানে শীতকালীন ম্যারাথনও আয়োজিত হয়েছে। 

গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলো বলছে, সর্বনিম্ন তাপমাত্রার সুযোগে তারা গাড়ির ব্রেকিং ব্যবস্থা পরীক্ষা করছে। স্থানীয়রা জানিয়েছে, বাইরে বের হওয়ার ১০ সেকেন্ডের মধ্যে হাত অসাড় হয়ে যাচ্ছে। অনেকে আবার ‘মাইনাস ৫০’ ডিগ্রির নিচে তাপমাত্রা দেখতে মোহে ভ্রমণে যাচ্ছেন। একটি ডিম ভাঙার কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে তা বরফ হয়ে যাচ্ছে। 

গত শুক্রবার থেকে টানা তিন দিন মোহেতে তাপমাত্রা ‘মাইনাস ৫০ ডিগ্রির’ নিচে নেমে গেছে। এই তাপমাত্রাকে শহরটিতে নজিরবিহীন বলা হচ্ছে। বেইজিং নিউজ জানিয়েছে, গত শুক্রবার থেকে শহরটিতে কয়লার ব্যবহার তিন গুণ বেড়েছে। গত সপ্তাহে চীনের আবহাওয়া কর্তৃপক্ষ এই অঞ্চলে নিম্ন তাপমাত্রা এবং ঠাণ্ডা বাতাসের জন্য সতর্কতা জারি করে।

সংবাদ সংস্থা সিনহুয়া জানিয়েছে, বৃহত্তর খিংগান পর্বতশ্রেণির বেশ কয়েকটি অঞ্চল, যা ইনার মঙ্গোলিয়া এবং হেইলংজিয়াং পর্যন্ত বিস্তৃত, সপ্তাহান্তে নতুন সর্বনিম্ন তাপমাত্রার মুখোমুখি হবে। 

চীন কয়েক বছর ধরে সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করছে। এ মাসের শুরুতে সিনহুয়া জানায়, গত ৬০ বছরে সবচেয়ে উষ্ণ গ্রীষ্ম ও শরত্কাল পার করেছে চীন।

এমএএস

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়