শিরোনাম
◈ সরকারের কাছে 'আট দফা দাবি' কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের ◈ শুক্রবারের সহিংসতায় ঢাকায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩২ জনে ◈ এটা অবশ্যই কারফিউ, এটা নিয়ম অনুযায়ীই হবে এবং সেটা শুট অ্যাট সাইট হবে: ওবায়দুল কাদের ◈ কারফিউ’র পরিপত্র জারি ◈ কর্মসূচি চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা কোটা আন্দোলনকারীদের ◈ ওবায়দুল কাদের কারফিউ জারি প্রসঙ্গে যা বললেন ◈ সারা দেশে কারফিউ জারি, সেনা মোতায়েনের সিদ্ধান্ত ◈ নরসিংদীর কারাগারে হামলার পর বের হয়ে গেছে কয়েকশ কয়েদি ◈ বাংলাদেশে সহিংসতা ও মৃত্যুর ঘটনায় জাতিসংঘের উদ্বেগ ◈ রাজধানীর উত্তরা, মোহাম্মদপুর, বাড্ডাসহ বিভিন্ন এলাকায় আন্দোলনকারীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ

প্রকাশিত : ২৮ মার্চ, ২০২৩, ০৭:৫৮ বিকাল
আপডেট : ২৮ মার্চ, ২০২৩, ০৭:৫৮ বিকাল

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

ঈদের আগে বিআরটির র‌্যাম্প চালুর সিদ্ধান্ত

শহীদুল ইসলাম: আসন্ন ঈদযাত্রা যানজটমুক্ত করতে সংশ্লিষ্টদের নিয়ে বৈঠক করেছেন সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব এ বি এম আমিন উল্লাহ নুরী। এসময় বন্ধ ইউলুপগুলো সরু করে ফের খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। একই সাথে ঈদযাত্রায় মহাখালী-বিমানবন্দর-টঙ্গী-গাজীপুর সড়ক  যানজটমুক্ত রাখতে বাস র‌্যাপিড ট্রানজিট (বিআরটি) প্রকল্পের বিমানবন্দর ও টঙ্গী অংশের র‌্যাম্প নির্মাণকাজ আগামী ১৫ এপ্রিলের আগে সম্পন্ন করার কথা বলা হয়। সমকাল

ঈদযাত্রা নির্বিঘ্ন ও যানজটমুক্ত রাখার উপায় খুঁজতে গত সোমবার সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব এ বি এম আমিন উল্লাহ নুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বিভিন্ন সংস্থার প্রতিনিধিরা এ সিদ্ধান্তগুলো নেন। 

বৈঠকে সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব এ বি এম আমিন উল্লাহ নুরী বলেন, বৈঠকে অনেকগুলো সিদ্ধান্ত হয়েছে। এগুলোর বাস্তবায়ন হলে আগের মতো যানজট হবে না। ঈদের আগে বিমানবন্দরের সামনে র‌্যাম্পের কাজ সম্পন্ন হবে। এটি চালু হলে যানজট কমবে।
এদিকে প্রতি বছরই নানা উদ্যোগের কথা বলা হলেও ঈদযাত্রায় বিমানবন্দর থেকে জয়দেবপুর চৌরাস্তা পর্যন্ত তীব্র যানজট হয়। ১৬ কিলোমিটার পথ পাড়ি দিতে দিন পার হয়। প্রকল্প অনুমোদনের প্রায় ছয় বছর পর ২০১৮ সালে বিআরটির নির্মাণকাজ শুরুর পর যানজট নিত্যসঙ্গী হয়েছে এই সড়কের।

এই র‌্যাম্প নির্মাণেই নিম্নমাণের সামগ্রী দিয়েছিল চীনা ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান চায়না গেঝুবা গ্রুপ কোম্পানি লিমিটেড। যা পরীক্ষায় দুই দফায় ফেল করে। ফলে বিআরটির ওভারপাসে এবং বাস ঘোরানোর লুপে ওঠার র‌্যাম্পটি ভেঙে পুনর্নির্মাণ করতে হচ্ছে। সভায় চীনা ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান জানায়, র‌্যাম্পের জয়েন্ট এক্সপানশন নির্মাণের প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম নেই। 

ঢাকা বিআরটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. শফিকুল ইসলাম বলেন, সেতু বিভাগের কাছ থেকে সরঞ্জাম পাওয়া যাবে কিনা, তা নিয়ে সোমবার বিকেলে পৃথক সভা হয়েছে। জয়েন্ট এক্সপানশনের বিশেষায়িত সরঞ্জাম প্রয়োজন। যা অর্ডার দিলে উৎপাদকরা বানিয়ে দেয়। ঈদের আগে পাওয়া গেলে র‌্যাম্পের নির্মাণ সম্পন্ন হবে। র‌্যাম্প ও স্টেশন বাদে বিআরটির বাকি কাজ শেষ। টঙ্গী-জয়দেবপুর অংশে বিআরটি করিডরের দুই পাশেই তিন লেনের সড়ক নির্মাণ করা হয়েছে। ঈদের সময় গাড়ির চাপ বাড়লেও ওই সড়কে যানজট হবে না বলে দাবি করেছেন ব্যবস্থাপনা পরিচালক।

এর আগে যানজট কমাতে ২০২১ সালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের তেজগাঁও-আবদুল্লাহপুর অংশে ৩১ কোটি টাকায় ১০টি ইউটার্ন নির্মাণ করে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন। 

এ বিষয় বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী অধ্যাপক কাজী মো. সাইফুন নেওয়াজ  বলেন, বিমানবন্দর এলাকায় সড়ক প্রশস্ত হওয়ায়, সেখানে ইউটার্ন কাজ করছে। কিন্তু মহাখালী, নাবিস্কো ও তেজগাঁওয়ের অপ্রশস্ত সড়কে ইউটার্নে ঘুরতে যাওয়া গাড়ির কারণে যানজট সৃষ্টি হচ্ছে। চিন্তাভাবনা ছাড়াই ইউটার্নগুলো নির্মাণের ফলে এই অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে।

প্রকল্পটি দেখভালের দায়িত্বে থাকা সড়ক পরিবহন বিভাগের অতিরিক্ত সচিব নীলিমা আখতার বলেন, ঈদের আগে-পরে কয়েকদিন বিআরটির নির্মাণকাজ বন্ধের সিদ্ধান্ত হয়নি। সভায় রাস্তায় গাড়ি পার্ক না করা, সড়কের দুই পাশ দখলমুক্ত রাখা, গাজীপুর এলাকার শিল্পাকারখানা ধাপে ধাপে ছুটি দেওয়াসহ প্রতি বছরের গতানুগতিক সিদ্ধান্ত নেওয়ার কথা বলা হয়। 

এসআই/এসবি২

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়