শিরোনাম

প্রকাশিত : ১৭ মে, ২০২২, ০৮:২৪ রাত
আপডেট : ১৭ মে, ২০২২, ০৮:২৪ রাত

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উদযাপন 

মোঃ হাবিবুর রহমান : [২] সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে অবস্থিত রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় উদযাপন করা হয়েছে। মঙ্গলবার সকাল ১১ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদনের মধ্য দিয়ে দিবসের শুভ সুচনা করেন রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মোঃ শাহ্ আজম।

[৩] এসময় তিনি বলেন, মহান মুক্তিযুদ্ধের মহানায়ক জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দীর্ঘদিন পশ্চিম পাকিস্তানে কারাবরণ শেষে ১৯৭২ সালের ১০ জানুয়ারি স্বদেশে ফিরে এসেছিলেন, বাংলাদেশের স্বাধীনতাকামী মানুষ তাকে অশ্রুসিক্ত নয়নে গ্রহণ করেছিলো। ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট ঘাতকদের হাতে বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের সদস্যদের নৃশংস হত্যা সংঘটিত হওয়ার কারণে বাংলাদেশ অন্ধকারে নিমজ্জিত হয়েছিলো। বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের সাড়ে ছয় বছর পর বঙ্গবন্ধুকন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশে প্রত্যাবর্তন করেন, সেদিনও লক্ষ লক্ষ মানুষের ঢল নেমেছিল। 

[৪] তিনি আরো বলেন, শেখ হাসিনা দেশে ফিরে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতির দায়িত্ব গ্রহণ করার পর অত্যন্ত কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে তিনি দলকে সংগঠিত করে সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে আবারও সোচ্চার করলেন, আন্দোলন রচনা করলেন স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে এবং মানুষের ভালবাসা অর্জনের মধ্যদিয়ে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করলেন। 

[৫] শেখ হাসিনা দেশে আসার পরে নিরলস পরিশ্রম করে তার পিতার স্বপ্ন বাস্তবায়ন করছেন। লক্ষ লক্ষ মায়ানমারের রোহিঙ্গাকে বাংলাদেশে আশ্রয় দেওয়ার কথা তুলে ধরে জননেত্রী শেখ হাসিনাকে মানবতার নেত্রী হিসেবে উল্লেখ করেন রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য। 

[৬] তিনি প্রধানমন্ত্রীর বিভিন্ন উন্নয়নের কথা তুলে ধরে বলেন শেখ হাসিনা দায়িত্ব গ্রহণের পরে সমুদ্রসীমা, ছিটমহলসহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সমস্যার সুষ্ঠ সমাধান করেছেন। প্রফেসর ড. মোঃ শাহ্ আজম নোবেল বিজয়ী অমর্ত্য সেনের একটি উক্তি তুলে ধরে বলেন "শেখ হাসিনার নেতৃত্বই বাংলাদেশের অর্থনৈতিক পরিবর্তনের মূল কারণ"।
 
[৭] অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার জনাব মোঃ সোহরাব আলী, শিক্ষক সমিতির সভাপতি ও সহকারী প্রক্টর ড. মোঃ ফখরুল ইসলামসহ বিভিন্ন বিভাগের চেয়ারম্যান, শিক্ষক, কর্মকর্তা, কর্মচারী ও শিক্ষার্থীবৃন্দ। 

[৮] পরে বিকাল ৪ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. মোঃ শাহ্ আজম-এর সভাপতিত্বে বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাডেমিক ভবন-১-এর লেকচার থিয়েটারে এক সেমিনারের আয়োজন করা হয়। সেমিনারে স্বাগত বক্তব্য রাখেন শিক্ষক সমিতির সভাপতি ও সহকারী প্রক্টর ড. মোঃ ফখরুল ইসলাম। মূল আলোচক হিসেবে আলোচনা করেন অধ্যাপক ড. মোজাফফর হোসেন, সাবেক উপাচার্য, পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। সেমিনার শেষে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের পরিবেশনায় এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

 

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়