শিরোনাম

প্রকাশিত : ৩০ জুন, ২০২২, ০৮:১৮ রাত
আপডেট : ৩০ জুন, ২০২২, ০৮:১৮ রাত

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

শিক্ষক হত্যা-হেনস্তায় জড়িতদের বিচারের দাবি জবি শিক্ষক সমিতির 

জবি শিক্ষক সমিতি

অপূর্ব চৌধুরী : নড়াইলের মির্জাপুর ইউনাইটেড ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসকে হেনস্তা, সাভারের আশুলিয়ায় কলেজ শিক্ষক উৎপল কুমার সরকারকে হত্যা এবং রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ইমেরিটাস অধ্যাপক ও পদার্থ বিজ্ঞানী ড. অরুণ কুমার বসাকের জমি দখলের ঘটনায় তীব্র নিন্দা জানিয়েছে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি। একইসাথে এসব ঘটনায় জড়িতদের অতি দ্রুত দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিতের দাবি জানিয়েছে সংগঠনটি।

বৃহস্পতিবার (৩০ জুন) বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে শিক্ষক সমিতির উদ্যোগে আয়োজিত এক মানববন্ধনে এসব দাবি জানানো হয়।

মানববন্ধনে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. ইমদাদুল হক বলেন, শিক্ষকদের হেনস্তা, লাঞ্চিত এবং হত্যা এটা আমাদের জাতির জন্য কলঙ্ক। পিতা-মাতার পরেই যে শিক্ষকদের অবস্থান সেখানে তাদের এ অপমান সহ্য করার মত নয়। তাই আমি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে বলবো অতি দ্রুত দোষীদের বিচারের মুখোমুখি করে একটা দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে। 

বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. কামালউদ্দীন আহমদ বলেন, শিক্ষকরা যেভাবে হেনস্তার শিকার হচ্ছেন তা মুক্তিযুদ্ধের চেতনাবিরোধী। যেসব ঘটনা ঘটছে তা আমাদের জন্য অত্যন্ত লজ্জার। আমরা অনেক কিছু অর্জন করেছি, কিন্তু এইসব ঘটনা যখন বিশ্বে প্রচারিত হবে তখন আমদের মানসম্মান কোথায় যাবে? তাই আমাদেরকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে শিক্ষকদের বিরুদ্ধে এ ধরনের হেনস্তার প্রতিবাদে কাজ করে যেতে হবে। 

 মানববন্ধনে বক্তারা শিক্ষক হত্যা, নির্যাতন ও নিপীড়নের বিরুদ্ধে সকলকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করার আহ্বান জানান। এসময় আশুলিয়ার চিত্রশাইল এলাকার হাজী ইউনুস আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজ শিক্ষক উৎপল কুমার সরকারের হত্যাকারীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করা হয়।

একইসঙ্গে নড়াইলে ইউনাইটেড ডিগ্রী কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসের গলায় জুতার মালা পরিয়ে লাঞ্ছিত করার ঘটনায় দোষীদের দ্রুত গ্রেপ্তারপূর্বক দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করা হয় এবং বাংলাদেশের  খ্যাতিমান পদার্থবিজ্ঞানী ও বিশ্ববিদ্যালয়ের পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের ইমেরিটাস অধ্যাপক ড. অরুণ কুমার বসাক এর সম্পত্তি দখল করে বিগত ১৮ বছর ধরে হয়রানির ঘটনায় জড়িতদেরও শাস্তির আওতায় এনে অরুণ কুমারের জায়গা দখলমুক্ত করে তাকে বুঝিয়ে দেওয়ার দাবি করা হয়।

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. আবুল হোসেনের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. আবুল কালাম মোঃ লুৎফর রহমান এর সঞ্চালনায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন অনুষদের ডিন, ইনষ্টিটিউটের পরিচালক, বিভাগীয় চেয়ারম্যান, প্রক্টর অধ্যাপক ড. মোস্তফা কামাল, সহকারী প্রক্টর, বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক, কর্মকর্তা, শিক্ষার্থী ও কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন।

  • সর্বশেষ