শিরোনাম

প্রকাশিত : ২৩ জানুয়ারী, ২০২২, ০২:৩৬ রাত
আপডেট : ২৩ জানুয়ারী, ২০২২, ০২:৩৬ রাত

প্রতিবেদক : নিউজ ডেস্ক

অসম্মানজনক, তাই নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন সেলিম

বিনোদন ডেস্ক : নতুন বছরের শুরুতেই অভিনয়শিল্পী সংঘের নির্বাচনে কে কে প্রার্থী হচ্ছেন সেটি নিয়ে তোড়জোড় শুরু হয়। তখন সমিতির সভাপতির দায়িত্বে থাকা অভিনেতা শহীদুজ্জামান সেলিম জানিয়েছিলেন, আবার তিনি নির্বাচন করবেন। প্রার্থী হওয়া অনেকটাই পাকাপোক্ত ছিল। এদিকে গত শুক্রবার ছিল শিল্পী সমিতির প্রার্থী পরিচিতি। সেখানে দেখা গেল এই অভিনেতা আগামী নির্বাচন থেকে নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন। এ সিদ্ধান্ত প্রসঙ্গে সেলিম জানান, অসমপ্রতিযোগীদের সঙ্গে নির্বাচন করাকে তাঁর কাছে অসম্মানজনক মনে হয়েছে। প্রথম আলো

জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পাওয়া এই শিল্পী নির্বাচনের জন্য মনোনয়ন সংগ্রহ করেননি। এমন সিদ্ধান্ত কেন নিলেন, প্রসঙ্গে সেলিম বলেন, ‘এবারের নির্বাচনে প্রার্থী হওয়াটা আমার কাছে অসম্মান বলে মনে হয়েছে। যাঁদের সঙ্গে নির্বাচনে প্রার্থী হতে হবে, এটা আমার সঙ্গে ঠিক যায় না। এই নেতৃত্বের প্রতিযোগিতা একটি সমপর্যায়ে হওয়ার প্রয়োজন ছিল। এভাবে নির্বাচন করাকে একটি অসম্মানজনক ব্যাপার বলে মনে করছি। যে কারণে নির্বাচন থেকে সরে আসছি।’

নির্বাচনের জন্য অনেক আগে থেকেই প্রস্তুতি ছিল। বলেছিলেন, সহকর্মীরাও আপনাকে চাচ্ছিলেন। অন্যদিকে অসম্পূর্ণ কাজগুলো শেষ করতে চান, নির্বাচন করলে তো যোগ্য প্রার্থীকেই সবাই বেছে নিতেন? এমন প্রশ্নে সেলিম বলেন, ‘হ্যাঁ, চাচ্ছিলাম। আমার সহকর্মী অনেকেই চাচ্ছিলেন। এখন সবাই তো ভাবেন আমি জিতব। যোগ্যতার মাপকাঠি তো আমি নির্ধারণ করি না। আমি বলতে পারি, আমার সমপর্যায়ের একজন এবং যে শিল্পী সমিতির প্রতিনিধিত্ব করবেন, তাঁকে একদম পুরোদস্তুর অভিনেতা হতে হবে। এই পদের জন্য জাতীয় পর্যায়ে স্বীকৃত একজন অভিনেতা হওয়া উচিত। তবে সবার জন্য শুভকামনা।’

২৮ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে টেলিভিশন অভিনয়শিল্পীদের সংগঠন অভিনয়শিল্পী সংঘের নির্বাচন। ২০২২ সালের এই নির্বাচনের জন্য বেছে নেওয়া হয়েছে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি। এবারের নির্বাচনে সভাপতি, সাধারণ সম্পাদকসহ বিভিন্ন পদে ৪৮ জন অভিনয়শিল্পী প্রার্থী হয়েছেন। গত শুক্রবার ছিল অভিনয়শিল্পী সংঘের প্রার্থী পরিচিতি সভা। সেখানে সংগঠনকে এগিয়ে নেওয়ার লক্ষ্যে প্রার্থীরা নিজেদের মতামত ব্যক্ত করেন।

  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়