প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] সিরাজগঞ্জে রোপা আমন চাষাবাদে বাম্পার ফলন

সোহাগ হাসান: [২] সিরাজগঞ্জে এবার মৌসুমী রোপা আমন চাষাবাদের বাম্পার ফলন হয়েছে। ইতোমধ্যেই ধান কাটা ও মাড়াই শুরু করেছে কৃষকেরা। নতুন ধানের বাজার মূল্য ভালো থাকায় কৃষকের মুখে হাসি ফুটেছে।

[৩] জেলার ৯টি উপজেলার মধ্যে তাড়াশ, রায়গঞ্জ, উল্লাপাড়া, কামারখন্দ ও সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার বিভিন্ন স্থানে এ মৌসুমী ধান চাষাবাদ বেশি হয়েছে। তবে সাম্প্রতিক বন্যায় যমুনা নদীর তীর ঘেসা কয়েকটি উপজেলায় এ চাষাবাদে ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। এ চাষাবাদে কিছুটা ক্ষতি হলেও উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে ২ লাখ ৮৪ হাজার ৩০৫ মেট্রিক ট্রন।

[৪] জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, জেলায় এবার রোপা আমন ধান চাষাবাদের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছিলো ৭২ হাজার ৬৩০ হেক্টর জমি। জুলাই মাসের শেষ সপ্তাহ থেকে কৃষকেরা এ লাভজনক চাষাবাদ শুরু করে। এ চাষাবাদে খরচ কম হওয়ায় লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়ে রোপা আমন ধান রোপণ করেছে কৃষকরা।

[৫] এ ধান কাটা ও মাড়াই শুরু হয়েছে চলতি মাসের প্রথম থেকে। এ নতুন ধান সংশ্লিষ্ট হাট বাজারে উঠছে এবং প্রতিমণ ধান ১ হাজার থেকে ১১০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এ চাষাবাদে খরচ বাদে বেশি লাভ হওয়ায় কৃষকের মুখে হাসি ফুটেছে।

[৬] জেলা কৃষি সম্প্রসাণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক আবু হানিফ বলেন, জেলায় রোপা আমন চাষাবাদে বাম্পার ফলন হয়েছে। গত বছরের চেয়ে এবার উৎপাদন বেশি হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

[৭] এদিকে জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মাহবুবুর রহমান খান বলেছেন, জেলায় কৃষকদের উৎপাদিত এ ধান আগামী সপ্তাহের শেষ দিক থেকে ক্রয় শুরু হবে এবং সরকারের নির্ধারিত প্রতি মণ ধান ১০ হাজার ৮০ টাকা দরে ক্রয় করা হবে। বর্তমানে বাজারে এ ধানের মূল্য কিছুটা বেশি থাকলেও তিনি কোন মন্তব্য করতে অস্বীকার করেন।  সম্পাদনা: হ্যাপি

সর্বাধিক পঠিত