প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে র‌্যাব-পুলিশের অভিযানে গাঁজা ও চোলাই মদ উদ্ধারসহ আটক ৯

সুজন কৈরী: [২] রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে পৃথক অভিযান চালিয়ে ৪৯ কেজি গাঁজা, ৩৪০ লিটার দেশীয় চোলাই মদ ও ৯০০ পিস ইয়াবাসহ ৯ জনকে আটক করেছে র‌্যাব ও পুলিশ।

[৩] র‌্যাব-১০ থেকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, শনিবার সকালে ব্যাটালিয়নের একটি দল যাত্রাবাড়ীর মাতুয়াইল এলাকায় অভিযান চালিয়ে ২৯ কেজি গাঁজাসহ সেলিম (৪৫) ও সাইফুল ইসলাম (৩০) নামের দুজন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করে। জব্দ গাঁজার আনুমানিক মূল্য ৮ লাখ ৭০ হাজার টাকা। আটকদের কাছ থেকে মাদক পরিবহনে ব্যবহৃত ১টি পিকআপ ভ্যান, ২টি মোবাইল ফোনসেট ও নগদ ৪২০টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

[৪] এছাড়া র‌্যাব- ১০ এর পৃথক অভিযানে শুক্রবার রাতে পুরান ঢাকার গেন্ডারিয়ার স্বামীবাগ লেন এলাকা থেকে ৩৪০লিটার দেশীয় চোলাই মদ উদ্ধার করা হয়েছে। আটক করা হয়েছে জাহানারা বেগম (৩৯), সাইদুর রহমান (৫১), জনি সাহা (৩১), উজ্জল দাস (৪২) ও দেলোয়ার রেহাসেন দিলু (৫৪) নামের ৫জন মাদক কারবারিকে। এ সময় তাদের কাছ থেকে ৬টি মোবাইল ফোনসেট ও মদ বিক্রির নগদ ২ হাজার ৫১৫টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

[৫] প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আটকদের কাছ থেকে র‌্যাব জানতে পেরেছে, তারা পেশাদার মাদক ব্যবসায়ী। বেশ কিছুদিন ধরে যাত্রাবাড়ীসহ ঢাকা শহরের বিভিন্ন এলাকায় গাঁজা ও চোলাই মদসহ অন্যান্য মাদকদ্রব্য সরবরাহ করছিলেন। আটকদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট থানায় পৃথক মাদক মামলা দায়ের করা হয়েছে।

[৬] এদিকে, শুক্রবার রাতে রাজধানীর বাড্ডা থানা এলাকা থেকে ২০ কেজি গাঁজা ও ৯০০ পিস ইয়াবাসহ দুজনকে আটক করেছে বাড্ডা থানা পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- জামাল হোসেন ও নাহিদুল ইসলাম।

[৭] বাড্ডা থানার ওসি মো. আবুল কালাম আজাদ বলেন, মাদক কেনা-বেচার তথ্যে পশ্চিম মেরুল বাড্ডা প্রধান সড়কের একটি দোকানের সামনে অভিযান চালায় পুলিশ। কিন্তু পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে দুই মাদক ব্যবসায়ীরা পালানোর চেষ্টা করে। পরে ধাওয়া করে জামাল ও নাহিদুলকে আটক করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে গাঁজা ও ইয়াবা এবং মাদক পরিবহনে ব্যবহৃত একটি রেজিস্ট্রেশন বিহীন মোটরসাইকেল জব্দ করা হয়।

[৮] গ্রেপ্তারকৃতরা জানিয়েছেন, তারা কুমিল্লার সীমান্তবর্তী এলাকা থেকে গাঁজা ও ইয়াবা সংগ্রহ করে ঢাকা মহানগরীর বিভিন্ন এলাকায় বিক্রি করতেন। এই ঘটনায় বাড্ডা থানায় মাদক মামলা দায়ের করা হয়েছে।

সর্বাধিক পঠিত