প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] বৈশ্বিক শক্তির কেন্দ্র হয়ে উঠতে পারে সাইবেরিয়ার একটি তামার খনি

সুমাইয়া মিতু: [২] ১৯৪৯ সালে সোভিয়েত ইউনিয়ন তাদের জাতীয় পরমাণু অস্ত্রাগারে ইউরেনিয়াম সরবরাহ করার জন্য ইউরেনিয়ামের সন্ধানে সাইবেরিয়ায় একটি অভিযান চালায়। তারা অভিযানটিতে ব্যার্থ হয় বিশাল স্থানজুড়ে অবস্থিত তামার খনির কারণে। প্রায় ৭০ বছর পর, আগামী বছর সে স্থানে রাশিয়ার একটি খননকারী প্রতিষ্ঠান অভিযান চালাতে যাচ্ছে। ইয়ন

[৩] কার্বনের পরিবর্তে কপারের ব্যাবহার বিশ্বের শক্তির চাহিদাকে ত্বরান্বিত করবে। এ কাজের সাফল্য, রাশিয়ার জন্য সুখবর বয়ে আনবে। তামার খনির অবস্থানটি ভূগর্ভস্থ চিরহিমায়িত অঞ্চলে। শীতের মৌসুমে সে অঞ্চলের তাপমাত্রা মাইনাস ৭৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত হয়ে থাকে। ফলে সে স্থানে কাজ করা দুঃসাধ্য হয়ে ওঠে। সম্পাদনা: সাকিবুল আলম

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত