প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আতিক খান: অন্যের সংসার ভেঙে, বিয়ে করায় নাসির-তামিমার শাস্তি হওয়া উচিত

আতিক খান: তামিমা তাম্মি আর পরীমনিরাই এখন সেলিব্রিটি। নাসির-তামিমার অবৈধ বিয়ের গায়ে হলুদে ৭ লাখ রেসপন্স আর ৫ হাজার কমেন্ট। ৮ বছরের মেয়েকে ফেলে নাচতে নাচতে স্টেজে ওঠে অবৈধ সংসার করতে তাদের বিবেকে বাধেনি। নাসির এসেছিলেন কয়েকজনের ঘাড়ে চড়ে। তারা আমাদের তরুণ প্রজন্মের জন্য খুবই খারাপ দৃষ্টান্ত স্থাপন করে গেলেন। নাসিরের জন্য মায়া লাগছে। বেচারা ৮০টা সিম আর অসংখ্য গার্লফ্রেন্ড সামলাতে গিয়ে ক্রিকেট ক্যারিয়ার নষ্ট করলো। এখন এতো অভিজ্ঞতা অর্জনের পরেও শেষ পর্যন্ত সংসার করলো আরেকজনের বউয়ের সঙ্গে। তামিমার আগের স্বামী রাকিবের অবস্থানটা চমৎকার। তিনি বলেছেন, আগে তামিমাকে ফিরিয়ে নেবো। তারপর দেখবো সংসার করবো নাকি তালাক দেবো। এখন তালাক দিলে নাসির তামিমার সুবিধা হবে। তাই আগে তাদের কাঠগড়ায় আনবে, শাস্তি নিশ্চিত করবে, নাসিরের সঙ্গে বিয়েটা অবৈধ প্রমাণ করবে তারপর সম্ভবত রাকিবও তামিমাকে ডিভোর্স দেবে।

নাসিরের পরিণতি থেকে তরুণ ক্রিকেটাররা চাইলে অনেককিছু শিখতে পারে, শিখতে পারে অন্যরাও। নারী ভক্তদের পাল্লায় পড়ে সম্ভাবনাময় ক্যারিয়ারটার বরোটা বাজানো বেচারা নাসির, জীবনের টেস্ট ম্যাচ খেলতে নেমেও শুরুতেই বাজেভাবে বোল্ড আউট হলেন। একজনের সংসার ভেঙে, একটা শিশুকে মাতৃহারা করে এভাবে ঢাক-ঢোল পিটিয়ে অবৈধ বিয়ে করে সমাজকে কলুষিত করার জন্য নাসির-তামিমার শাস্তি হওয়া উচিত। না টিকল ক্যারিয়ার, না টিকল সংসার। সব ক‚ল হারিয়ে দিশেহারা বেচারা ক্রিকেটার নাসির।