প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

এক কাতল মাছের দাম ৪৪ হাজার ২০০ টাকা

ডেস্ক রিপোর্ট : রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার দৌলতয়ার ৫ নম্বর ফেরিঘাট এলাকায় একটি কাতল মাছ ৪৪ হাজার ২০০ টাকায় বিক্রি করা হয়েছে। কাতল মাছটির ওজন ছিল ২৫ কেজি ৩০০ গ্রাম।

বৃহস্পতিবার (২২ জুলাই) সকালে পদ্মা ও যমুনা নদীর মিলনস্থলে ঢালারচর এলাকায় নিরঞ্জন হালদার নামের এক জেলের জালে ধরা পড়ে মাছটি।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, পদ্মা নদীর মাছের খ্যাতি দেশজুড়ে। নদীতে পানি বাড়ার সময় সাধারণত বড় বড় মাছ ধরা পড়ে। বৃহস্পতিবার (২২ জুলাই) সকালে পদ্মা ও যমুনা নদীর মিলনস্থলে ঢালারচর এলাকায় নিরঞ্জন হালদার নামের এক জেলের জালে ধরা পড়ে ২৫ কেজি ৩০০ গ্রামের ওজনের একটি বড় কাতল মাছ। সকাল সাড়ে ১০টার দিকে মাছটি ৫ নম্বর ফেরিঘাট এলাকায় বিক্রির জন্য তোলা হয়।

প্রতিযোগিতামূলক দরের মাধ্যমে মাছের আড়তদার দুই ভাই সম্রাট শাহজাহান শেখ ও নুরু ইসলাম শেখ যৌথভাবে মাছটি কিনে নেন। কেজি-প্রতি দাম দেওয়া হয় ১ হাজার ৭০০ টাকা। এরপর মুঠোফোনের মাধ্যমে বিভিন্ন ব্যবসায়ীর সঙ্গে যোগাযোগ করেন। প্রতি কেজি ১ হাজার ৭৫০ টাকা হিসেবে ৪৪ হাজার ২০০ টাকায় মাছটি বিক্রি করে দেন।

মাছের আড়তদার শাহজাহান শেখ আরটিভি নিউজকে বলেন, ‘আমি দীর্ঘদিন ধরে ঘাটে মাছের ব্যবসা করি। এসব মাছ প্রতিযোগিতামূলক-ভাবে ঘাটের বড় আড়তদারেরা কিনে নেন। স্থানীয়ভাবে এসব মাছের ক্রেতা কম। স্থানীয়ভাবে বিক্রি করতে হলে মাছ কেটে ভাগ করে বিক্রি করতে হয়। নতুবা ঢাকা বা অন্য কোনো স্থানের বড় ব্যবসায়ী বা শিল্পপতিদের সঙ্গে ফোনে যোগাযোগ করে বিক্রি করা হয়। আমি মাছটি কেনার ঘণ্টা-খানেকের মধ্যেই বিক্রি করে দিয়েছি।’

সর্বাধিক পঠিত