প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় লাভের আশায় দিনরাত পরিশ্রম খামারিদের

তৌহিদুর রহমান নিটল: [২] এবারের আসন্ন কোরবানির ঈদকে সামনে রেখে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার খামারিরা লাভের আশায় দিনরাত গরু মোটাতাজা করতে গিয়ে অক্লান্ত পরিশ্রম করছেন। শেষ সময়ে দেশে করোনার সংক্রামণ বেড়ে যাওয়ায় একদিকে লকডাউন অন্যদিকে হাট বসা নিয়ে অনিশ্চিত হওয়ায় খামারিরা এখন চরম উৎকণ্ঠায় দিন পাড় করছে। বিক্রি নিয়ে তাদের মনে দেখা দিয়েছে শঙ্কা এরকমটাই জানিয়েছেন বেশ কয়েকজন খামার মালিক।

[৩] জেলা প্রাণিসম্পদ সম্পদ অফিস সূত্রে জানা যায়, চাহিদার চেয়েও বেশী পশু উৎপাদন রয়েছে। জেলায় তালিকাভুক্ত ১২ হাজার ৩৭০টি খামার ছাড়াও অনেকেই পারিবারিকভাবেও কোরবানির পশু পালন করছেন। এ বছর বিভিন্ন কোরবানি যোগ্য পশুর চাহিদা জেলায় ১ লাখ ৬৩ হাজার হলেও পশু রয়েছে ১ লক্ষ ৭৭ হাজার ।

[৪] খামারের মালিক আফজাল মিয়া জানান, লক্ষ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করে পশু উৎপাদন করা হচ্ছে। কিন্তু চলমান পরিস্থিতির কারণে লাভের কথা পড়ে এখন গরু বিক্রি নিয়েই আমাদের ভাবতে হচ্ছে। আসন্ন কোরবানির ঈদকে সামনে রেখে এমনিতে গরু খাদ্যের দাম বাড়তে শুরু করেছে কয়েক মাস আগ থেকে। খৈল, ভূষি, ঘাস, খড়, লালিসহ বিভিন্ন দানাদার খাবার খামারের গরুকে প্রতিনিয়তই খাওয়ানো হচ্ছে। গতবারও করোনার কারণে আমাদের ব্যবসা ভাল যায় নি। ক্ষতি পুষিয়ে নিতে আমরা খামার গুলোতে পর্যাপ্ত সংখ্যক কোরবানির পশু তৈরি করেছি। তবে শেষ সময়ে করোনার প্রকট বাড়তির দিকে হওয়ার বিভিন্ন অঞ্চলের পাইকার আসা সহ স্হানীয়ভাবে পশুর হাট বসা নিয়ে দু:চিন্তায় পড়ে গেছি। জানিনা ভাগ্যে কি আছে ।

[৫] খামার মালিক মো. নাসির ভূইয়া বলেন, স্বাস্থ্যবিধি মেনে আমার খামারে গরুর পরিচর্যা করা হচ্ছে। মোটাতাজা করনে কোন প্রকার ক্ষতিকর উপাদান ব্যবহার না করে সম্পূর্ণ প্রাকৃতিক উপায়ে খাবার খাওয়ানো হচ্ছে। তবে এবার বাজারজাত নিয়ে উৎকন্ঠায় আছি লকডাউনে গরুর হাট না বসলে আর্থিক সংকটে পড়ে যাব।

[৬] জেলা প্রাণিসম্পদ সম্পদ কর্মকর্তা ডা. এ বি এম সাইফুজ্জামান বলেন, অনলাইনে পশু কেনাবেচার জন্য প্রতিটি উপজেলায় ফেসবুক পেইজ খোলা হয়েছে। এতে খামারিদের যাবতীয় পশুর তথ্য আপলোড করা হচ্ছে। অনলাইনে পছন্দের পর ক্রেতারা ইচ্ছা করলে খামারে এসে দেখে শুনে তার কোরবানির পছন্দের পশুটি কিনতে পারবেন। আমাদের পক্ষ থেকে খামারিদের গরু পালনে যাবতীয় নির্দেশনা দেওয়া হচ্ছে সবসময়ই।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত