প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মেঘনা নদীতে ইঞ্জিন বিকল, রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির সদস্যসহ ৩০ যাত্রী উদ্ধার

সুজন কৈরী : জাতীয় জরুরি সেবা নম্বর ৯৯৯ এ ফোন পেয়ে মেঘনা নদীতে ঝড়ের কবলে পড়া ইঞ্জিন বিকল ট্রলার থেকে রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির সদস্যসহ ৩০ জন যাত্রী উদ্ধার করেছে নৌ পুলিশ।

বুধবার নৌ পুলিশের ট্রেনিং, লিগ্যাল এন্ড মিডিয়া বিভাগের অতিরিক্ত সুপার সাথী রানী শর্মা জানান, মঙ্গলবার রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির সদস্যসহ ৩০ জন যাত্রী একটি ট্রলারে করে হাতিয়ার জনতাবাজার ঘাট থেকে ভাসানচরের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয়েছিল। তখন আবহাওয়া স্বাভাবিক ছিল। কিন্তু কিছুদূর যাওয়ার পর ইসলামচর পৌঁছলে মেঘনা নদীর প্রচন্ড ঢেউয়ের কারণে ট্রলারটির ইঞ্জিন বিকল হয়ে মাঝনদীতে ভাসতে থাকে।

ট্রলারের মাঝি প্রাণপন চেষ্টা করেও ইঞ্জিন চালু করতে না পারায় যাত্রীদের মধ্যে এক অজানা শঙ্কা কাজ করতে থাকে। অন্যদিকে ঝড়ো হাওয়াও বাড়তে থাকে। এছাড়াও উপকুলীয় এলাকায় তখন ৩নম্কর সতর্কতা সংকেত চলছিল। তাই আশেপাশে তাদের সাহায্য করার মতো কোন নৌকা বা ট্রলার ছিলো না। এর মধ্যে ট্রলারে থাকা রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির এক সদস্য ৯৯৯ এ কল করে সাহায্য চান। ৯৯৯ থেকে নোয়াখালী নলচিরা নৌ পুলিশ ফাঁড়িকে বিষয়টি অবহিত জানায়। পরে নৌ পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক ইকরাম উল্লাহ তাৎক্ষনিক দল নিয়ে রওনা করেন। যাত্রীদের সঙ্গে যোগাযোগ করে তাদের অবস্থান নির্ণয় করেন এবং তাদের উদ্ধার করে নিরাপদে ভাসানচরে নিয়ে যান।

এ বিষয়ে নৌ পুলিশ প্রধান অতিরিক্ত আইজিপি মো. আতিকুল ইসলাম জানান, মানব সেবাই পুলিশের মূলমন্ত্র। নৌ পুলিশ সর্বদা নৌপথে বিপদগ্রস্থদের পাশে থেকে মানুষের আস্থা অর্জনে সক্ষম হয়েছে। প্রতিকুল আবহাওয়ায় নৌ পুলিশ তাদের উপর অর্পিত দায়িত্ব পালন করে ৩০ জন যাত্রীর প্রাণ রক্ষা করেছে। যা সত্যিই প্রশংসার দাবীদার। মানবসেবায় পুলিশের এই অগ্রযাত্রা সবসময়ই অব্যাহত থাকবে।

সর্বাধিক পঠিত