প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] হারিয়ে যাওয়া পুরাকীর্তি ‘ইন্দ্র ও যমরাজ’ অবশেষে যুক্তরাষ্ট্র থেকে থাইল্যান্ডে ফিরছে

সালেহ্ বিপ্লব: [২] অর্ধশতাব্দি আগে থাইল্যান্ড থেকে চুরি হয়ে যাওয়া ইন্দ্ররাজ ও যমরাজ, দুই দেবতার মূর্তি অবশেষে দেশে ফিরতে যাচ্ছে। দশম শতাব্দিতে তৈরি বেলেপাথরের খোদাইকর্ম দুটি অনেক হাত ঘুরে এখন যুক্তরাষ্ট্রের হাতে। তারা থাই সরকারকে ঐতিহাসিক খোদাই চিত্র দুটি ফেরত দেবে বলে জানিয়েছে। বিবিসি

[৩] এগুলো মূর্তি হিসেবে আলাদা করে তৈরি নয়, মন্দিরের স্তম্ভের গায়ে তৈরি করা খোদাইচিত্র। একেকটির ওজন ১৫০০ পাউন্ড। ধারণা করা হয়, ভিয়েতনাম যুদ্ধের সময় দেবতার মূর্তিখচিত স্যান্ডস্টোন দুটো থাইল্যান্ড থেকে চুরি করা হয়েছিলো। লস অ্যাঞ্জেলস টাইমস

[৪] ১৯৫৮ থেকে ১৯৬৯ সালের মধ্যে থাইল্যান্ডের সা কাও প্রদেশের প্রসাত খাও লন মন্দির এবং বুড়ি রাম প্রদেশের প্রসাত নং হং মন্দির থেকে স্যান্ডস্টোন দুটি খোয়া যায় বলে ধারণা করছেন আর্কিওলজিস্টরা। বিশেষ করে, ১৯৬৫-৬৬ সালে প্রচুর থাই শিল্পকর্ম চুরি ও পাচারের ঘটনা ঘটে। ব্যাংকক পোস্ট

[৫] অনেক বছর ধরে স্যান্ডস্টোন দুটি সান ফ্রান্সিকোর এশিয়ান আর্ট মিউজিয়ামে সংরক্ষিত আছে। মিউজিয়ামের পরিচালক জাই ঝু জানান, এখন এদের গন্তব্য ব্যাংককে অবস্থিত থাই ন্যাশনাল মিউজিয়াম। ইয়াহু নিউজ

[৬] তিনি বলেন, তারা অনেক আগেই পুরাকীর্তি দুটি থাইল্যান্ডের কাছে ফিরিয়ে দিতে চেয়েছিলেন। শিল্পকর্ম দুটি অবশেষে নিজ দেশে ফিরতে যাচ্ছে, এটা আমাদের কাছে আনন্দের। সিবিএস

[৭] ফিরিয়ে দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়ার আগে মার্কিন স্বরাষ্ট্র দপ্তর তিন বছর অনুসন্ধান চালিয়ে নিশ্চিত হয়, এগুলো চুরি করে আনা হয়েছে। এরপর মার্কিন সরকার সান ফ্রান্সিসকো কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে এগুলো ফিরিয়ে দেয়ার জন্য থাই সরকারের সঙ্গে চুক্তি করে।

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত