প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ৮৫ কি.মি. পথ পাড়ি দিয়ে মেয়ের লাশ নিয়ে শ্মাশানে বাবা

হ্যাপি আক্তার: [২] গাড়ির সামনের সিট বেল্টে বাঁধা মেয়ের লাশ। কোভিডে মৃত্যু হয়েছে তাঁর। পাশে বসে কাঁদতে কাঁদতে ড্রাইভ করছেন বাবা। সম্প্রতি এমনই একটি ছবি ভাইরাল হয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায়। জি নিউজ২৪

[৩] বাবার অভিযোগ ৪০ হাজার টাকা চেয়েছে অ্যাম্বুলেন্স। তার পক্ষে সেই টাকা দেওয়া সম্ভব ছিলো না। দর করার পরও রাজস্থান থেকে ৮৫ কিলোমিটার দূরত্বে অ্যাম্বুলেন্সের ভাড়া নিচ্ছে ১৬ থেকে ৩৫ হাজার টাকা। তাই নিজের গাড়িতেই মেয়ের লাশ বসিয়ে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন বাবা।

[৪] সোমবার (২৪ মে) ভারতের কোটা শহরে এই ঘটনাটি ঘটে। ছবি ভাইরাল হতেই নড়চড়ে বসেছে প্রশাসন। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

[৫] কোভিড -১৯-এ আক্রান্ত মেয়ে সীমাকে ২৪ এপ্রিল ভারতের রাজস্থানের কোটার এক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। রোববার তিনি মারা যান। এরপর মৃত মেয়েকে কোটা থেকে ঝালওয়ার পর্যন্ত নিয়ে যেতে অ্যাম্বুলেন্স ভাড়া করতে যায় পরিবার কিন্তু টাকার অঙ্ক শুনে মাথায় হাত ওঠে তাঁদের। এরপরই নিজের গাড়িতে করে নিয়ে যাবার সিদ্ধান্ত নেন বাবা। প্রায় ৮৫ কিলোমিটার মেয়ের লাশকে পাশে রেখে ড্রাইভ করে শ্মশানে পৌঁছয়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত