প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] চাকরি গেল মোসাদ প্রধান কোহেনের, নিয়োগ পেলেন বার্নিয়া

রাশিদুল ইসলাম : [২] গাজায় ইসরায়েলি হামলার পর চাকরি গেল মোসাদ প্রধান ইয়োসি কোহেনের।  ইরানের সঙ্গে পারমানবিক সমঝোতায় ফিরে আসার জন্যে যুক্তরাষ্ট্র ও অন্যান্য দেশ ভিয়েনায় আলোচনা শুরুর আগে তা বন্ধ করতে বিশেষ মিশন নিয়ে কোহেনকে প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে সাক্ষাত করতে পাঠিয়েছিলেন নেতানিয়াহু। জেরুজালেম পোস্ট

[৩] ভিয়েনা আলোচনায় ৯৫ শতাংশ অবরোধ প্রত্যাহার করে নেওয়ার ব্যাপারে আলোচনা ফলপ্রসূ হয়ে ছে বলে দাবি করছে ইরান। এমনি প্রেক্ষাপটে কোহেনকে বরখাস্ত করলেন নেতানিয়াহু।

[৪] গোয়েন্দা সংস্থা মোসাদের প্রধানকে সরিয়ে দিয়ে তার উপ-প্রধানকে এই পদে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। নেতানিয়াহু সোমবার রাতে ঘোষণা করেন, মোসাদ প্রধান হিসেবে এই সংস্থার উপ প্রধান ডেভিড বার্নিয়াকে তার স্থলাভিষিক্ত করা হয়েছে।

[৫] ৫৬ বছর বয়সি বার্নিয়া গত ৩০ বছর ধরে গোয়েন্দা সংস্থায় কাজ করলেও তার সম্পর্কে বিশদ কিছু জানা যায়নি। ১৯৯৬ সালে তিনি মোসাদে যোগ দেন। স্পেশাল অপারেশন ফোর্স সায়েরেত মাতকালে তিনি একজন সেনা হিসেবে কাজ করেছেন।

[৬]  ফিলিস্তিনি যোদ্ধাদের সামরিক শক্তি সম্পর্কে সঠিক তথ্য দিতে ব্যর্থতার জন্য কোহেনকে সরিয়ে দেয়া হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

[৭] ২০১৫ সাল থেকে কোহেন মোসাদের প্রধান হিসেবে কর্মরত ছিলেন। অন্যকোনো দেশ থেকে নিরাপত্তাজনিত হুমকি থেকে ইসরায়েলকে রক্ষার জন্যে দেশটির গোয়েন্দা সংস্থা দায়বদ্ধ। মোসাদে যোগ দেওয়ার পর বার্নিয়া জমেট ডিভিশনে যোগ দেন এবং এ ডিভিশন গোয়েন্দা এজেন্ট নিয়োগ করে থাকে। ২০১৯ সালে বার্নিয়াকে মোসাদের উপপ্রধান নিয়োগ দেওয়া হয়। হারেৎজ

[৮] তেল আবিবের উত্তরে শ্যারন এলাকায় বার্নিয়া বাস করেন। তিনি মোসাদে ব্যাপক সংস্কার এনে কাঠামোগত পরিবর্তন করায় ইসরায়েলি এই গোয়েন্দা সংস্থাটি নিভৃতে কাজ করছে। গত ডিসেম্বেরে নেতানিয়াহু আভাস দেন মোসাদের প্রধান পরিবর্তনের। তবে অনান্য কর্মকর্তাদের অনুমোদনের পর এ পরিবর্তন করা হয়।

[৯] এর আগে ইয়োসি কোহেন আরব দেশগুলোর সঙ্গে ইসরায়েলের স্বাভাবিক সম্পর্ক স্থাপনে ব্যাপক ভূমিকা রাখেন। আমিরাত ও বাহরাইনেও ভ্রমণ করেন কোহেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত