প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

অনুদানের অর্থে নির্মিত হৃদি হকের ছবি দিয়ে ৭০ দিন পর কাজে ফিরলেন ফেরদৌস

ইমরুল শাহেদ: এই তথ্য জানিয়েছেন ফেরদৌস নিজেই। ছবিটির নাম ‘১৯৭১: সেই সব দিন’। ফেরদৌস বলেছেন, গল্পটি একেবারেই অন্য ধরনের। বর্তমানে ছবিটির শুটিং হচ্ছে পুরনো ঢাকায়। ফেরদৌস গণমাধ্যমকে বলেছেন, ‘প্রথম সিনেমা হলেও হৃদি হকের কাজের ধরণ তাকে মুগ্ধ করেছে। প্রতিটি দৃশ্যের কাজ খুবই সূ²ভাবে করছে। কোনো ধরনের আপস নেই। এমন যত্ন ও আন্তরিকতা নিয়ে ছবির কাজ হলে, সেটা একটা সুন্দর পর্যায়ে যাবে বলে আমি নিশ্চিত। আমারও কাজ করে বেশ ভালো লাগছে।’

সিনেমার শুটিংয়ে অংশ না নিলেও ঈদের বিশেষ ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান আনন্দমেলা উপস্থাপনা করেছেন ফেরদৌস। বাংলাদেশ টেলিভিশনের অনুরোধে সর্বোচ্চ স্বাস্থ্যবিধি মেনে এই অনুষ্ঠানের দৃশ্যধারণে অংশ নেন তিনি। তার সঙ্গে উপস্থাপনায় আরও ছিলেন পুরনো পর্দাজুটি পূর্ণিমা।

ফেরদৌস অভিনীত সর্বশেষ মুক্তি পায় অরণ্য পলাশ পরিচালিত ‘গন্তব্য’ ছবিটি। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণ থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে ছবিটি নির্মাণ করা হয়েছে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জীবনীচিত্র ‘বঙ্গবন্ধু’তেও অভিনয় করার কথা ছিল ফেরদৌসের। শেষ পর্যন্ত ভিসা–জটিলতার কারণে তিনি আর ভারতে যেতে পারেননি, শুটিংয়েও অংশ নিতে পারেননি। ফেরদৌস বলেন, ‘ভারতে প্রবেশসংক্রান্ত আমার একটা জটিলতা ছিল। সেটার সমাধান হয়নি। তাই ভিসা হয়নি, শুটিংয়েও যাওয়া সম্ভব হয়নি।’ পশ্চিমবঙ্গের একটি নির্বাচনের প্রচারণায় অংশগ্রহণ করাকে কেন্দ্র করে বিজেপি সরকার তার উপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে।

ফেরদৌস সর্বশেষ অভিনয় করেছিলেন ‘মানিকের লাল কাঁকড়া’ সিনেমায়। নন্দিত অভিনয়শিল্পী ও পরিচালক আফজাল হোসেনের এই ছবির শুটিংয়ের পর আর ক্যামেরার সামনে দাঁড়াননি তিনি। করোনার সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় নিতান্ত প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকেও বের হননি।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত