প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সিংগাইরে ফেলে রাখা বাড়িতেই ঠাঁই হলো পরিচয়হীন নবজাতকের

সিরাজুল ইসলাম: সদ্য ভূমিষ্ট হওয়া পরিচয়হীন নবজাতকের ঠাঁই হলো ফেলে যাওয়া বাড়িতেই । বুধবার (১৯ মে) দিবাগত গভীর রাতে কে বা কারা মানিকগঞ্জের সিংগাইর পৌর এলাকার বকচর মিস্ত্রিপাড়ার রিয়াজুদ্দিনের বাড়ির আঙ্গিনায় ফেলে রেখে যায় এক কন্যা নবজাতককে।

গৃহকর্তা শিশুটির কান্নার শব্দ শুনে ঘুম থেকে ওঠে উদ্ধার করে তার পরিবারের হেফাজতে রাখেন। উদ্ধার হওয়া নবজাতকের পরিচয় শনাক্ত না হওয়ায় বৃহস্পতিবার (২০ মে) দুপুরের দিকে উপজেলা নির্বাহী অফিসার রুনা লায়লা, এ এস পি সিংগাইর (সার্কেল) মোহাঃ রেজাউল হক, ওসি মো.সফিকুল ইসলাম মোল্লা সমাজসেবা অফিসারের মাধ্যমে রিয়াজুদ্দিন ও মিশু আক্তার মোর্শেদা দম্পতির নিকট সাময়িকভাবে লালন পালনের জন্য হস্তান্তর করেন।

সিংগাইর উপজেলা সমাজ সেবা অফিসার মো. ইমানুর রহমান বলেন, কে বা কারা শিশুটিকে গভীর রাতে রিয়াজুদ্দিনের বাড়িতে রেখে যায়। খবর পেয়ে থানা পুলিশসহ ঘটনাস্থলে গিয়ে শিশুটিকে উদ্ধার করে চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়। গৃহকর্তা রিয়াজুদ্দিন দম্পতি লালন পালনের ইচ্ছা পোষন করলে উপজেলা শিশু কল্যান বোর্ডের সিদ্ধান্ত মোতাবেক কয়েকটি শর্তে সাময়িকভাবে তাদেরকে দায়িত্ব দেয়া হয়। মনিটরিংয়ে রেখে পরবর্তীতে শিশুটিকে লিখিতভাবে হস্তান্তর করা হবে।

রিয়াজুদ্দিন বলেন, বাচ্চাটিকে আমি আর্শিবাদ হিসেবে মনে করছি। সুযোগ পেলে আমার দু’টি সন্তানের মতোই ওকেও লালন-পালন করে বড় করে তুলবো।
এ ব্যাপারে সিংগাইর উপজেলা নির্বাহী অফিসার রুনা লায়লা বলেন, আপাতত সাধারণ ডায়েরি করে শিশুটিকে ওই বাড়িতেই রাখা হয়েছে। ফেলে যাওয়া নবজাতককে কেউ দত্তক নিতে চাইলে শিশু কল্যান বোর্ডের সিদ্ধান্ত মোতাবেক দেয়া হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত