প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] বিধিনিষেধেও রাজধানীতে তীব্র যানজট, দুর্ভোগে অফিসগামী মানুষ

মাসুদ আলম: [২] কঠোর বিধিনিষেধের তৃতীয় দফায় লকডাউনে রোববার অধিকাংশ সড়কে তীব্র যানজট দেখা গেছে। এর প্রভাব ফেলেছে পাড়া-মহল্লার সড়কেও। সড়কে ব্যক্তিগত গাড়ির চাপ ছিলো বেশি। শপিং মলগুলোর সামনে ব্যক্তিগত গাড়ির লাইন ছিলো চোখে পড়ার মতো। গণপরিবহন বন্ধ থাকায় দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে অফিসগামী ও জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হওয়া মানুষদের। আবার ভাড়াও গুনতে হচ্ছে দ্বিগুন। কোথাও কোথাও যানজটের কারণে ৫ থেকে ১০ মিনিটের মত আটকে থাকতেও হয়।

[৩] বিধিনিষেধের শুরুর দিকে স্বাস্থ্যবিধি বাস্তবায়নে পুলিশের যে সরব ভূমিকা ছিল, সময়ের সঙ্গে সঙ্গে তা নিষ্প্রভ হয়ে গেছে। চেকপোস্ট গুলোতে পুলিশ সদস্যদের যে যারমতো দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে। আবার কোথাও কোথাও তো চেকপোস্টই গায়েব হয়ে গেছে।

[৪] পুলিশ কর্মকর্তারা বলছেন, মার্কেট খুলে দেওয়ায় সড়কে যানচলাচল বেড়েছে। যারা সড়কে বেরিয়েছে তাদের অধিকাংশ শপিংয়ের জন্য। অধিকাংশ মানুষ স্বাস্থ্যবিধি মানতে নারাজা। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তৎপর রয়েছে। মুভমেন্ট পাস চেকিং হচ্ছে। পাশাপাশি জরিমানাও করা হচ্ছে।

[৫] ভাটারা খন্দকার বাড়ির বাসিন্দা মো. ওমর ফারুক বলেন, সড়কের অবস্থা দেখে বুঝার উপায় নেই দেশে বিধিনিষেধ চলছে। বিধিনিষেধের মধ্যেও যানজট। ‘মুভমেন্ট পাস’ নিয়ে বিধিনিষেধের শুরুতে যে কড়াকড়ি দেখা গেলেও এখন ‘মুভমেন্ট পাস’ চেক করতে দেখা যাচ্ছে না। সড়কে পুলিশের তৎপরতা কম থাকায় যে যারমতো চলাফেরা করছেন। গণপরিবহন ছাড়া সব যানবাহন চলছে।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত