প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

যশোরে ছাত্রদল নেতাকে কুপিয়ে জখমের ঘটনায় মামলা

জাহিদুল কবির: যশোরে ছাত্রলদল নেতাকে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে। গত বুধবার রাতে যশোর জিলা স্কুলের ভেতরে ছাত্রদলের এমএম কলেজ শাখার সদস্য সচিব নূর ইসলাম রুবেলকে (২৯) কুপিয়ে জখম করা হয়। এই ঘটনায় রুবেলের ভাই নজরুল ইসলাম কোতয়ালি থানায় ছাত্রদল ও যুবদল নেতাদের আসামি করে মামলা করেছেন।

আসামিরা হলো, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি এবং শহরের আরএন রোড এলাকার আতাউল্লাহর ছেলে রাজিদুল ইসলাম সাগর (৩৪), জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক এবং রেলগেট চোরামারা দিঘিরপাড় এলাকার মৃত আইনুল হকের ছেলে আনছারুল হক রানা (৫০), বারান্দী মোল্লাপাড়া এলাকার সিরাজ মিস্ত্রির ছেলে মিজান চৌধুরী (২৮) ও হাবিব (২৩), শংকরপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের পাশের বাবলু শেখের ছেলে জয় (২৮), মোল্লাপাড়ার আশরাফ ড্রাইভারের ছেলে জুবায়ের হোসেন (২৫), শংকরপুর গোলপাতা মসজিদ এলাকার মৃত আব্দুল গণির ছেলে আরিফুল ইসলাম আরিফ (৪০), রেলগেট শ্রীদুর্গা হোটের পেছনের মৃত মঞ্জু সরদারের ছেলে আব্দুর রাজ্জাক (৪০), যশোর জিলা স্কুলের মসজিদের পেছনের আব্দুল হামিদের ছেলে আনোয়ার পারভেজ (৪০), এজাহারে উল্লেখ করা হয়েছে, আসাসিদের সাথে রুবেলের দলীয় বিষয় নিয়ে গন্ডগোল হয়।

এরপর থেকে তাকে ক্ষতি করার জন্য সুযোগ খুঁজতে থাকে। গত বুধবার রাত নয়টার দিকে রুবেল তারাবির নামাজ শেষে জিলা স্কুলের উত্তর পাশ দিয়ে বাড়ি ফিরছিলো। সে সময় আসামি সাগর ও রানার হুকুমে আসামিরা ধারালো দা, রোহার রড, চাকু প্রভৃতি নিয়ে রুবেলের ওপর আক্রমন করে। তাকে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে তার পাকেট থেকে সাড়ে ৭ হাজার টাকা নিয়ে চলে যায়। সংবাদ পেয়ে তিনিসহ অন্যান্যরা জিলা স্কুলের মধ্যে গিয়ে রুবেলকে মারাত্মক জখম অবস্থায় উদ্ধার করে যশোরে জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এদিকে রুবেলকে কুপিয়ে জখম করার অভিযোগে জাতীয়তাবাদি ছাত্রদল এমএম কলেজ শাখার উদ্যোগে বৃহস্পতিবার দুপুরে প্রেসক্লাব যশোরের সামনে এক মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। ওই অনুষ্ঠানে ছাত্রনেতা রুবেলের ওপর হামলাকারীদের আটক ও দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবি জানানো হয়।

সর্বাধিক পঠিত