প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ইফতারের আয়োজনে কেন বাঙ্গি রাখবেন?

আতাউর অপু: এবার গ্রীষ্মের মধ্যেই রমজান হচ্ছে। সারাদিন রোজা থাকার পর সন্ধ্যায় ইফতারে বা ইফতারের পর ঠান্ডাজাতীয় খাবার খাওয়ার জন্য মন ছটফট করে। ইফতারের পর মাগরিবের নামাজ পড়ার কিছুক্ষণ পরই এশার নামাজ। প্রস্তুতিরও ব্যাপার থাকে। ইফতারের সময় হওয়ার পর থেকে এশা পর্যন্ত এই সময় এমন কিছু খাবার খাওয়া উচিত যে খাবারগুলো স্বাস্থ্যকর ও পুষ্টিকর। যে খাবারগুলো শরীরের ঘাটতি চাহিদা পূরণ করবে। সেদিক থেকে বাঙ্গি কিন্তু বেশ ভালো।

বাঙ্গি যেমন বিভিন্নভাবে খাওয়া যায় তেমনি এর বিভিন্নরকম উপকারিতা রয়েছে। এতে আমিষ, ফ্যাটি অ্যাসিড ও খনিজ লবণ রয়েছে। এছাড়াও ক্যালসিয়াম, ভিটামিন-এ, ভিটামিন-বি, ম্যাগনেসিয়াম ও পটাসিয়ামসহ অন্যান্য উপকারী উপাদান রয়েছে। ইফতারের আয়োজনে বাঙ্গি রাখার ফলে হিটস্ট্রক, উচ্চ রক্তচাপ ও পানিশূন্যতার মতো সমস্যা কমার সম্ভাবনা থাকে।

কাঁচা বাঙ্গি সবজি হিসেবে ব্যবহার করা যায়। বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের মতে, সেহরি বা ইফতারের পর পরিপূর্ণ খাবারে সবুজ শাক-সবজি ও বিভিন্ন রঙের ফলমূল খাওয়া ভালো। সেদিক থেকে বাঙ্গি কিন্তু খুবই উপকারী। কাঁচা অবস্থায় তরকারি হিসেবে খাওয়া যায় আর পাকা বাঙ্গি কেটে তরমুজের মতো খাওয়া যায়।

এছাড়াও ইফতারের আয়োজনে ঠান্ডাজাতীয় খাবার বা ইফতারের উপকরণ হিসেবে বাঙ্গি হতে পারে বিশেষ রেসিপি। এবার তাহলে বাঙ্গির সুস্বাদু শরবতের রেসিপি তুলে ধরা হলো-

বাঙ্গির শরবত :

উপকরণ : বাঙ্গি ৪০০ গ্রাম, ১ টেবিল চা চামচ লেবুর রস, ৩ টেবিল চামচ পুদিনা পাতা, ৪ টেবিল চামচ চিনি, ৪ গ্লাস ঠান্ডা পানি, স্বাদমত লবণ ও কয়েক টুকরো বরফ কিউব।

প্রস্তুত প্রণালী : প্রথমে বাঙ্গি ছিলে নিয়ে ছোট ছোট টুকরো করুন। এবার সকল উপকরণ (বরফ ছাড়া) একত্র করে ব্লেন্ডারে নিয়ে ব্লেন্ড করুন। ভালো করে এবার ছেঁকে নিন। তারপর গ্লাসে করে বরফ কিউব ও পুদিনা পাতা দিয়ে সুন্দর করে সাজিয়ে এবার পরিবেশন করুন বাঙ্গির শরবত।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত