প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

স্বাস্থ্যকর্মী নেই, রোগী নিজেই সংগ্রহ করছেন করোনার নমুনা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ভারতে করোনা মহামারির ভয়াবহতা বর্ণনাতীত। সারা দেশের মতো মহামারির চূড়ান্ত অবনতি হয়েছে দেশটির পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য পশ্চিমবঙ্গেও। সেখানে করোনা পরিস্থিতির এতোটাই অবনতি হয়েছে যে, হাসপাতালের স্বাস্থ্যকর্মীরা সবাই করোনায় আক্রান্ত হওয়ায় করোনা শনাক্তকরণ পরীক্ষা করতে আসা প্রত্যেক রোগীকেই সংগ্রহ করতে হচ্ছে নিজ নিজ লালারসের নমুনা।

শনিবার (২৪ এপ্রিল) ভয়ানক এই চিত্রটি ধরা পড়েছে রাজ্যের মুর্শিদাবাদ জেলার জঙ্গিপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, জঙ্গিপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালের মোট ২৯ জন স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। তাদের মধ্যে রয়েছেন হাসপাতালের সুপার এবং সহকারী সুপারও। আর এর ধাক্কা লেগেছে দৈনন্দিন কাজকর্মেও।

শনিবার করোনা পরীক্ষার জন্য ওই হাসপাতালে যাওয়া রোগীদের সবাই নিজ নিজ লালারসের নমুনা সংগ্রহ করতে বাধ্য হয়েছেন। এমনকি গোটা প্রক্রিয়া তত্ত্বাবধানের জন্যও হাসপাতালের কোনো স্বাস্থ্যকর্মীও পাশে ছিলেন না।

করোনা পরীক্ষা করাতে হাসপাতালে আসা ব্যক্তিদের অনেকেরই অভিযোগ, কেন্দ্রীয় ও রাজ্য সরকার করোনা মহামারি মোকাবিলার জন্য সব রকম পদক্ষেপ গ্রহণ করার আশ্বাস দিলেও সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালেই এমন ‘ভয়াবহ’ ছবি ধরা পড়েছে।

বিষয়টি মেনে নিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষও। জঙ্গিপুর সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালের সহকারী সুপার সৌরভ দাস বলছেন, ‘আমাদের হাসপাতালের অধিকাংশ স্বাস্থ্যকর্মী এবং নার্স করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। ফলে চিকিৎসা সেবা ব্যহত হচ্ছে।’

তিনি বলেন, আমি নিজেও করোনায় আক্রান্ত। তাই সাধারণ মানুষকে নিজেকেই লালারসের নমুনা সংগ্রহ করতে হচ্ছে। এই সমস্যার খুব তাড়াতাড়ি সমাধান হবে।

সর্বাধিক পঠিত