প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] পুরান ঢাকায় একের পর এক কেমিক্যাল কারখানায় অগ্নিকাণ্ডের পরেও নেই কোন কার্যকর পদক্ষেপ: পবা

সমীরণ রায়: [২] শনিবার অনলাইনে পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলন (পবা) আয়োজিত এক আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন, [২] পুরান ঢাকায় প্রায় ২৫ হাজার কেমিক্যাল গোডাউন, এর মধ্যে বৈধ মাত্র ২৫০০টি, এগুলো অবিলম্বে অপসারণ করা উচিত। গত ২৩ এপ্রিল দিবাগত রাতে পুরান ঢাকার আরমানিটোলায় আগুনে চারজন মারা গেছেন। মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন অনেকে। ২০১৯ সালের ২০ ফেব্রুয়ারি চকবাজারের চুড়িহাট্টায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ৭১ জন প্রাণ হারায়।

[৩] তারা বলেন, গত ২০১০ সালে নিমতলীতে অগ্নিকাণ্ডে ১২৪ জনের প্রাণহানি ঘটে। পরে প্রধানমন্ত্রী এখান থেকে কেমিক্যাল গোডাউন, কারখানা ও দোকান সরানোর জন্য নির্দেশ দেন। কিন্তু আগের মতো রাসায়নিক গোডাউন রয়েছে প্রায় প্রতিটি বাড়িতে। প্রতিটি বাড়ি যেন একেকটি বোমা ঘর।

[৪] তারা আরও বলেন, এসব দুর্ঘটনার পর অবৈধ রাসায়নিক গোডাউন সরানোর কথা আলোচনা হলেও বাস্তবে প্রতিফলন নেই। বাড়ির মালিকরা বেশি টাকার লোভে গোডাউন ভাড়া দেন। ফলে কয়েকদিন পর পর দুর্ঘটনায় প্রাণ হারায় নিরীহ মানুষ।

[৫] এতে অংশগ্রহণ করেন পবার চেয়ারম্যান আবু নাসের খান, সম্পাদক মেসবাহ সুমন, বাংলাদেশ কেমিক্যাল সোসাইটির সাবেক সভাপতি, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষক ইউজিসি প্রফেসর ড. এম, মুহিবুর রহমান, পরিবেশ অধিদপ্তরের সাবেক অতিরিক্ত মহাপরিচালক প্রকৌশলী মো. আবদুস সোবহান প্রমুখ।

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত