প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মৃত্যুর কয়েক ঘণ্টা পর দাদি হয়েছেন কবরী

বিনোদন ডেস্ক: ঢাকাই চলচ্চিত্রের কিংবদন্তি অভিনেত্রী সারাহ বেগম কবরী গত ১৭ এপ্রিল পৃথিবী থেকে বিদায় নিয়েছেন। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এই মহাতারকা প্রয়াত হন।কবরীর মৃত্যুর কয়েক ঘণ্টা পর তার চতুর্থ ছেলে জয়নাল চিশতীর ঘরে জন্ম নেয় ফুটফুটে কন্যা সন্তান। নবজাতকের নাম রাখা হয়েছে আইলা। এটি তার দ্বিতীয় মেয়ে। আশা নামে তাদের আরেকটি মেয়ে রয়েছে।বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন জয়নাল চিশতীর নিকটাত্মীয় সঙ্গীতশিল্পী নাহিদ কবির কাকলী।

তিনি জানান, কানাডায় ইঞ্জিনিয়ারিং পড়াশোনা শেষ করে সেখানেই স্থায়ীভাবে বসবাস করছেন জয়নাল। কবরীর মৃত্যুর কয়েক ঘণ্টা পর জয়লানের স্ত্রী রোয়েনা আহসান কন্যা সন্তানের জন্ম দেন। কবরীর পুত্রবধূ এবং নবজাতক দু’জনই সুস্থ আছেন। চিত্ত চৌধুরীর সঙ্গে প্রথম ঘর বেঁধেছিলেন কবরী। এই সংসারে জন্ম নেয় দুই ছেলে।

চিত্ত চৌধুরীর সঙ্গে বিচ্ছেদের পর ১৯৭৮ সালে কবরী বিয়ে করেন সফিউদ্দীন সরোয়ারকে। এরপর এই অভিনেত্রী নিজের নাম পাল্টে রাখেন কবরী সরোয়ার। তাদের সংসারে জন্ম নেয় তিন ছেলে। কিন্তু এই সংসারও টেকেনি। ২০০৮ সালে তাদেরও বিচ্ছেদ হয় এবং ফের নাম পাল্টে অভিনেত্রী হয়ে যান সারাহ বেগম কবরী।

কবরীর পাঁচ ছেলের মধ্যে বড় তিন ছেলে দেশের বাইরে থাকেন। বড় ছেলে অঞ্জন চৌধুরী আমেরিকায় পড়াশোনা করে দীর্ঘ দিন ধরে সেখানেই স্থায়ী। দ্বিতীয় ছেলে রিজওয়ান চৌধুরী ও যুক্তরাষ্ট্র থেকে লেখাপড়া শেষ করে বর্তমানে দুবাইয়ে চাকরি করছেন। তৃতীয় ছেলে শাকের ওসমান চিশতী সিনেমা নিয়ে পড়াশোনা করেছেন অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় থেকে। চতুর্থ ছেলে জয়নাল চিশতী কানাডার প্রবাসী। সবচেয়ে ছোট শান অসমান চিশতী (প্রায় ৩০) ঢাকায় থাকেন। তিনি মানসিকভাবে প্রতিবন্ধী।বাংলা নিউজ২৪

সর্বাধিক পঠিত