প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মির্জাগঞ্জে ছাত্রলীগের অফিস ভেঙ্গে জমি দখলের অভিযোগ, আটক ২

সোহাগ হাসান: মির্জাগঞ্জে ছাত্র লীগের অফিস ভাংচুর করে মাটি ফেলে জমি দখলের অভিযোগ দুজনকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলো- উপজেলার পশ্চিম সুবিদখালী গ্রামের শামসুল আলম হাওলাদারের ছেলে মোঃ সাব্বির আহমেদ (২৪) ও পূর্ব সুবিদখালী গ্রামের লিটন মুন্সির ছেলে রাকিব(২৫)। এব্যাপারে (২১ এপ্রিল)রাতে উপজেলা ছাত্র লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ রাকিব মৃধা আটককৃতসহ ৪ জনকে আসামি করে মির্জাগঞ্জ থানায় লিখিত অভিযোগ করেন। জানাযায়, সাব্বির ও রাকিব মামাতো ভুভাতো ভাই।

সাব্বিরদের বাসার সামনে উপজেলার সুবিদখালী বাজার ব্রীজের ঢালে সরকারি জমিতে অস্থায়ী ঘর নির্মান করে ছাত্র লীগের অফিস চলছিল। বুধবার সন্ধ্যার পরে সাব্বির তাদের পরিবার লোকজন ও আত্নীয়দের নিয়ে অফিস ভাংচুর করে মাটি ফেলে ওই জমি দখলের চেষ্টা করে। এসময় তারা অফিসের আসবাপত্র, বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীর ছবি চুরি করে নিয়ে যায়। এ ঘটনার তীব্র নিন্দা ও অপরাধীদের শাস্তির দাবিতে ছাত্র লীগের নেতৃবৃন্দরা বিক্ষোভ মিছিল করলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ঘটনাস্থল থেকে ওই দুজনকে আটক করে পুলিশ। আটককৃতের পরিবারের দাবি, জমি তাদের ! ছাত্রলীগকে অফিস ভাড়া দেওয়া হয়েছে। তবে তাদের সাথে ডিট শেষ হয়ে জাওয়ায় তাদের জমিতে তারা কাজ করেন।

ছাত্রলীগের সভাপতি মোঃ জহিরুল ইসলাম জুয়েল শিকদার বলেন, সরকারী জমিতে আটকৃত’র পরিবাররা অফিস করে দিয়েছেন। এবং কমিটি বাতিল হওয়ার পর ৩০ পিচ চেয়ার ছিল সেখান থেকে রাকিব মৃর্ধা ২২ পিচ চেয়ার নিয়ে অফিস তালা বদ্ধ করে রেখেছিলেন। তারপর থেকে ঐ অফিসে তিনি বসেন না এবং রাকিব মৃর্ধা বিস্তারিত বলতে পারবেন বলে জানান।

ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক মোঃ রাকিব মৃর্ধা বলেন, সরকারী জমিতে ছাত্রলীগ অফিস। ভাংচুর করে মাটি ফেলিয়ে দখল করার চেষ্টা করেন। প্রতিবাদ করলে ছাত্রলীগের কর্মিদের সাথে খারাপ আচারন করেন। ও অফিস ভাংচুর কারিদের আইনের আওতায় এনে সর্বোচ্চ বিচারের দাবী জানান। মির্জাগঞ্জ থানার ওসি মোঃ মহিববুল্লাহ জানান, অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

সর্বাধিক পঠিত