প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ভিজিটিং কার্ড দেখিয়েও চলাচল করতে পারবেন চিকিৎসক-স্বাস্থ্যকর্মীরা

শাহীন খন্দকার: [২] লকডাউনের মতো কঠোর বিধিনিষেধের সময় আইডি কার্ড সাথে না থাকলেও ভিজিটিং কার্ড দেখিয়ে চলাচল করতে পারবেন চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মীরা-এমনটি জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। বুধবার কোভিড-১৯ পরিস্থিতি নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ভার্চুয়াল স্বাস্থ্য বুলেটিনে এসব কথা জানানো হয়। এ সময় স্বাস্থ্যকর্মীদের সহযোগিতা করতে পুলিশের প্রতি আহ্বান জানানো হয়। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বুলেটিনে আরও জানানো হয়, সরকারি হাসপাতালে বেড খালি নেই এমন তথ্য সঠিক নয়।

[৩] বুধবার (২১ এপ্রিল) আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সহায়তা এবং স্বাস্থ্যকর্মীদের পরিচয়পত্র সঙ্গে রাখার আহ্বান জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের স্বাস্থ্য বুলেটিনে অধিদপ্তরের নন কমিউনিকেবল ডিজিজের লাইন ডিরেক্টর অধ্যাপক রোবেদ আমীন।

[৪] অধ্যাপক রোবেদ আমীন বলেন, ‘পুলিশ, বিজিবি, সেনাবাহিনী গত একটি বছর ধরে মহামারির মধ্যে অক্লান্ত পরিশ্রম করছে। আপনারা অবগত আছেন, এই করোনার মহামারির সময় চিকিৎসক, নার্স, টেকনিশিয়ানসহ অন্যান্য স্বাস্থ্যকর্মী যারা আছেন তারা প্রথম থেকেই ফ্রন্ট লাইনার হিসেবে নিয়োজিত আছেন। ইতোমধ্যে লক্ষ করলে দেখবেন, আমাদের অনেক সম্মানিত চিকিৎসকসহ অনেক স্বাস্থ্যকর্মী মারাও গেছেন।

[৫] রোবেদ আমিন বলেন, তাদের নিজেদের জীবন ছাড়াও তাদের পরিবারের অনেকেরই মৃত্যুর মূল কারণ ছিলেন তারাই। এটা কিন্তু আমাদের খেয়াল রাখতে হবে। স্বাস্থ্যকর্মীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, আপনাদের প্রতি তাই বিনীত অনুরোধ, চলাচলের সময়ে আপনার দপ্তর থেকে সরবরাহকৃত যেসব পরিচয়পত্র অথবা যেকোনও ধরনের একটি আইডি কার্ড সঙ্গে রাখার চেষ্টা করবেন। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী চাওয়ামাত্র প্রদর্শন করবেন।

[৬] এছাড়া সব সরকারি স্বাস্থ্যকর্মীর আইডি কার্ড স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এবং এইচআরআইএস থেকে দেওয়া হয়েছে। প্রত্যেকে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ওয়েবসাইটে এইচআরআইএস প্রোফাইলে লগইন করে ডাউনলোড করতে পারবেন। যেসব চিকিৎসক প্রাইভেটে আছেন, প্রাইভেট চেম্বার করেন তারা শুধু তাদের ভিজিটিং কার্ড দেখালেই চলবে। প্রাইভেটে যারা চাকরি করছেন তাদের প্রতিষ্ঠানের যেকোনও আইডি কিন্তু তারা পাবেন। নিরাপত্তার দায়িত্বে যারা আছেন তাদের দেখালেই আপনারা চলাচল করতে পারবেন। এই বিষয়ে আপনাদের সবার সহযোগিতা একান্ত কাম্য।’

 

সর্বাধিক পঠিত