প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] এখন সারের জন্য কৃষককে কোন রকম কষ্ট করতে হয় না: কৃষিমন্ত্রী

আনিস তপন: [২] বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষ থেকে অনলাইনে ‘সার বিষয়ক জাতীয় সমন্বয় ও পরামর্শক কমিটির’ সভায় এ বলে মন্তব্য করেন কৃষিমন্ত্রী ড. মো. আব্দুর রাজ্জাক।

[৩] মন্ত্রী বলেন, বর্তমান সরকার দেশে সার ব্যবস্থাপনায় সুশাসন প্রতিষ্ঠা করেছে। সরকার একদিকে যেমন সারের পর্যাপ্ত সরবরাহ নিশ্চিত করছে, অন্যদিকে তেমনি চার দফায় সারের দামও অনেক কমিয়ে কৃষকের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিচ্ছে।

[৪] সার ব্যবস্থাপনায় বিএনপি সরকারের দুই মেয়াদে তারা দুবারই সার ব্যবস্থাপনায় চরমভাবে ব্যর্থ হয়েছিল অভিযোগ করে আব্দুর রাজ্জাক বলেন, তখন সারের জন্য কৃষককে দ্বারে দ্বারে ঘুরতে হয়েছে। সারের দাবিতে কৃষককে আন্দোলন করতে হয়েছে, প্রাণ দিতে হয়েছে।

[৫] সভায় নিবিড় ও সম্প্রসারিত চাষাবাদের প্রয়োজনে ২০২১-২২ অর্থবছরে রাসায়নিক সারের চাহিদা নির্ধারণ করা হয়েছে মোট ৬৬ লাখ মেট্রিক টন। এর মধ্যে ইউরিয়া ২৬ লাখ টন, টিএসপি ৭ লাখ টন, ডিএপি ১৬ লাখ ৫০ হাজার টন ও এমওপি ৭ লাখ ৫০ হাজার মেট্রিক টন।

[৬] গত ২০২০-২১ অর্থবছরে সারের চাহিদা ছিল ইউরিয়া ২৫ লাখ ৫০ হাজার টন, টিএসপি ৫ লাখ, ডিএপি ১৫ লাখ টন ও এমওপি ৭ লাখ ৫০ হাজার মেট্রিক টন।

সর্বাধিক পঠিত