প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] গবেষণা চৌর্যবৃত্তি: এলেক্স মার্টিনের বিরুদ্ধে সামিয়া রহমানের মামলা

ইসমাঈল ইমু: [২] মিথ্যা ও বানোয়াট ই-মেইল আইডি ভিত্তি করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক সামিয়া রহমানের বিরুদ্ধে চৌর্যবৃত্তির অভিযোগ করায় এলেক্স মার্টিন নামে এক বিদেশি নাগরিকের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।

[৩] বুধবার ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক আসসামছ জগলুল হোসেনের আদালতে এ মামলা করেন সামিয়া রহমান। আদালত বাদীর জবানবন্দি গ্রহণ করে পরে আদেশ দেবেন বলে জানান। সাইবার ট্রাইব্যুনালের পেশকার শামীম আল মামুন বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

[৪] জানা গেছে, গত ২৮ জানুয়ারি ঢাবির সিন্ডিকেট সভায় গবেষণা জালিয়াতির দায়ে গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক সামিয়া রহমানের পদাবনতি করে ‘সহকারী অধ্যাপক’ করা হয়। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ, ২০১৬ সালের ২ ডিসেম্বর সামিয়া রহমান ও অপরাধবিজ্ঞান (ক্রিমিনোলজি) বিভাগের প্রভাষক সৈয়দ মাহফুজুল হক মারজানের A new dimension of Colonialism and Pop Culture : A Case Study of the Cultural Imperialism নামক আট পৃষ্ঠার একটি গবেষণা প্রবন্ধ সোশ্যাল সাইন্স রিভিউ জার্নালে প্রকাশিত হয়, যা ১৯৮২ সালে শিকাগো জার্নালে প্রকাশিত মিশেল ফুকোর Subject and Power প্রবন্ধ থেকে প্রায় পাঁচ পৃষ্ঠা হুবহু নকল করা।

[৫] এ প্রসঙ্গে সামিয়া রহমান সাংবাদিকদের বলেন, যে অভিযোগে তাকে শাস্তি দেয়া হয়েছে, যার পরিচয় (শিকাগো ইউনিভার্সিটির জার্নাল ‘ক্রিটিক্যাল ইনকোয়ারি’র অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ অ্যাসিস্ট্যান্ট অ্যালেক্স মার্টিন পরিচয়ধারী) দিয়ে ইউনিভার্সিটি অব শিকাগো প্রেস থেকে চিঠি এসেছে, সেই অ্যালেক্স মার্টিন বলে তো ওই জার্নালে কেউ নেই এবং তারা এ ধরনের চিঠি পাঠায়নি।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত