প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১]পাটজাত পণ্য তৈরি করে স্বাবলম্বী হচ্ছেন সাতক্ষীরার গ্রামীণ নারীরা

মো. আসাদুজ্জামান: [২] জেলায় দিন দিন বাড়ছে পাটশিল্পের কদর। বর্তমানে জেলার শত শত নারীরা সংসারের কাজের পাশাপাশি অবসর সময়ে নিজের বাড়িতে অথবা দলবদ্ধভাবে পাটের দড়ি তৈরি করে নিজেদের জীবিকা নির্বাহ করছেন।

[৩] তাদের দিয়ে তৈরি করা হচ্ছে পাটের ব্যাগ, ম্যান্ডেলা, ঝুড়ি, পাপোস, ওয়ালম্যাটসহ বিভিন্ন পণ্য। এসব পণ্য দেশ ছাড়িয়ে জাপান, যুক্তরাষ্ট্রসহ বিভিন্ন দেশে রপ্তানি করা হচ্ছে।

[৪] এক একজন ঘরে বসেই আয় করছেন মাসে ৮ থেকে ১০ হাজার টাকা। জেলার ৮০ থেকে ৯০টি গ্রামের ৯৫ ভাগ নারী প্রতিমাসে আয় দিয়েই চলছে তাদের সন্তানদের লেখাপড়াসহ আনুষঙ্গিক খরচ।

[৫] গ্রামীণ দারিদ্র জনগোষ্ঠির এই নারীদের কর্মমুখি করতে এগিয়ে এসেছে স্থানীয় ঋশিল্পী হ্যান্ডক্রাফট লিমিটেড জুট সেন্টার নামক বেসরকারি একটি সংস্থা।

[৬] পাটের দড়ি তৈরির কাজে নিয়োজিত সাতক্ষীরা সদরের বাটকে খালির কবিতা রানী ও চালতে তলা এলাকার তাহমিনা খাতুন জানান, জেলার হাট বাজার থেকে ৬০ টাকা কেজি দরে পাট ক্রয় করেন তারা। আর এক কেজি পাটে ১৩০০ থেকে ১৫০০ হাত চিকন পাটের দড়ি এবং ৪০০ থেকে ৫০০ হাত মিডিয়াম পাটের দড়ি বুনতে পারেন তারা।

[৭] সাতক্ষীরা বিসিকের উপপরিচালক কৃষ্ণপদ মল্লিক জানান, নারীদের উন্নয়নে তার পক্ষ থেকে সর্বাত্মক সহযোগিতা করা হবে। সম্পাদনা: শাহানুজ্জামান টিটু

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত