প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] শাজাহানপুরে বন্ধু হয়ে বন্ধুকে হত্যা। ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তি

আবদুল ওহাব: [২] বগুড়া শাজাহানপুর উপজেলায় মোশারফ হোসেন বাপ্পি (১৫) নামের এক কিশোরকে গলাকেটে হত্যা মামলায় তার দুই বন্ধুকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

[৩] পরে দুপুরে আদালতে হাজির করা হলে তারা হত্যার দায় স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি প্রদান করে।

[৪] রবিবার ৩ জানুয়ারী শাজাহানপুর থানার এসআই আরমান হোসেন ছাম্মাক এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

[৫] গ্রেপ্তারকৃতরা হলো, উপজেলার গয়নাকুড়ি গ্রামের নুরুজ্জামান (৩১) ও জাহিদ (১৭) নামে এক কিশোর।

[৬] শাজাহানপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আরমান হোসেন ছাম্মাক জানান, গ্রেপ্তারকৃত দুইজনই হত্যার দায় স্বীকার করে আদালতে বলেছেন, বাপ্পি বন্ধু হয়েও তাদের সঙ্গে কিছুদিন হলো খারাপ  ব্যবহার করত। বাবা-মা তুলে সব সময়ই তার সমবয়সী ও ছোটদের গালি গালাজ করত।

[৭] তিনি বলেন, একইভাবে ঘটনার দিন রাতে বাপ্পির সঙ্গে গ্রেপ্তারকৃত দুইজনের আবারও কথা কাটাকাটি ও দুর্ব্যাবহার হয়। একপর্যায়ে রাতে তারা বাপ্পিকে মোবাইল ফোনে ডেকে নিয়ে  ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে । এ সময় বাপ্পির সঙ্গে থাকা সাহেব আলীকেও  হত্যার উদ্দেশ্যে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপালে সে কৌশলে পালাতে সক্ষম হয়। কিন্তু গুরুতর আহত হয়। সে বর্তমানে বগুড়া জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুর সঙে্গ পাঞ্জা লড়ছে।

[৮]  নিহত মোশারফ হোসেন বাপ্পি উপজেলার খরনা ইউনিয়নের গয়নাকুড়ি গ্রামের মোকছেদ আলীর ছেলে। গত ২৮ ডিসেম্বর তাকে হত্যা করা হয়। এ ঘটনায় তার বাবা বাদি হয়ে শাজাহানপুর থানায় হত্যা মামলা করেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত