প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] হ্রাস পেতে শুরু করেছে করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট ছাড়া যাত্রীর সংখ্যা: বিমানবন্দর স্বাস্থ্য কর্মকর্তা

লাইজুল ইসলাম: [২] হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের স্বাস্থ্য কেন্দ্রের দেয়া তথ্যে জানা গেছে, গত ২০ দিনে আন্তর্জাতিক রুটে বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে আগত যাত্রীর সংখ্যা ছিল ৭৪ হাজার ২১৫ জন (৫ ডিসেম্বর থেকে ২০ ডিসেম্বর পর্যন্ত)।

[৩] তারা আরো জানায়, এ সময়ে বিভিন্ন ফ্লাইটে আগত এবং প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে থাকা রোগীর সংখ্যা ছিল যথাক্রমে- তিন হাজার ৮৭৩ জন (৩০৪ জন কোয়োরেন্টাইনে), দুই হাজার ৯৫৭ জন (কোয়োরেন্টাইনে ১৯৫ জন), তিন হাজার ২২৩ জন (কোয়োরেন্টাইনে ২৩৫ জন) তিন হাজার ৫ জন (কোয়োরেন্টাইনে ৮০ জন), তিন হাজার ৫১৯ জন (কোয়োরেন্টাইনে ৪৮ জন), পাঁচ হাজার ৭৩৬ জন (কোয়োরেন্টাইনে ১১৮ জন), তিন হাজার ৮৪৭ জন (কোয়োরেন্টাইনে ৩০ জন), চার হাজার ১৩৫ জন (কোয়োরেন্টাইনে ২৩ জন), তিন হাজার ৮৮১ জন (কোয়োরেন্টাইনে ৪ জন), চার হাজার ৫০ জন (কোয়োরেন্টাইনে ২৬৫ জন), চার হাজার ২৭৯ জন (কোয়োরেন্টাইনে একজন), চার হাজার ৩৭৩ জন (কোয়োরেন্টাইনে ৪১৬ জন), চার হাজার ৪৭৮ জন (কোয়োরেন্টাইনে নেই), তিন হাজার ৫২ জন (কোয়োরেন্টাইনে একজন), তিন হাজার ২৮৪ (কোয়োরেন্টাইনে চারজন), দুই হাজার ৮২৬ জন (কোয়োরেন্টাইনে ১৫৫ জন), দুই হাজার ৪১৮ জন (কোয়োরেন্টাইনে দুজন) এবং তিন হাজার ৪৩ জন (কোয়োরেন্টাইনে পাঁচজন)।

[৪] বিমানবন্দরের স্বাস্থ্য বিভাগের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. শাহরিয়ার সাজ্জাদ জানান, আগের তুলনায় করোনা সনদ ছাড়া যাত্রীর সংখ্যা বহুলাংশে হ্রাস পেয়েছে। সনদ ছাড়া যাত্রী এলে স্বাস্থ্য বিভাগের কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো ছাড়া অন্য কোনো কাজ নেই বলে মন্তব্য করেন তিনি।

[৫] করোনার আরটি পিসিআর নেগেটিভ রিপোর্ট ছাড়া কিংবা করোনা পজিটিভ যাত্রী নিয়ে আসাসহ বিভিন্ন কারণে যেসব এয়ারলাইন্সকে জরিমানা করা হয়, তাদের মধ্যে মালদিভিয়ান এয়াইলাইন্সকে ২ লাখ ৩৬ হাজার টাকা, এয়ার এশিয়াকে এক লাখ টাকা, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সকে ৩০ হাজার টাকা, সৌদি এয়ারলাইন্সকে দুই লাখ টাকা, ইতিহাদকে এয়ারওয়েজকে দুই লাখ টাকা এবং বুরাক এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট অপারেটরকে তিন লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত