প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

এখনও ম্যারাডোনাকে ক্ষমা করছেন না সেই গোলরক্ষক

স্পোর্টস ডেস্ক : আর্জেন্টাইন কিংবদন্তি দিয়েগো ম্যারাডোনার মৃত্যুতে গোটা বিশ্বের মতোই শোকাচ্ছন্ন ইংল্যান্ডের সাবেক গোলকিপার পিটার শিলটন। তবে সর্বকালের শ্রেষ্ঠ ফুটবলারকে মৃত্যুর পরও ক্ষমা করতে পারছেন না তিনি। কারণটাও জানিয়েছেন, ১৯৮৬ সালের বিশ্বকাপের সেই ‘হ্যান্ড অব গড’ গোলের কাহিনী যে এখনও মন থেকে সরাতে পারছেন না তিনি!

গোটা বিশ্বকে কাঁদিয়ে, বুধবার (২৫ নভেম্বর) ৬০ বছর বয়সে চিরবিদায় নেন দ্য গোল্ডেন বয় ম্যারাডোনা। শারীরিক অসুস্থতা ও মাদকাসক্তি কেড়ে নিয়েছে ফুটবল ঈশ্বরের জীবন।

পেলে, মেসি, রোনালদো থেকে শুরু করে বিশ্ব ফুটবলের সব রথী-মহারথীরা তার প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছেন। পুরো বিশ্বে তৈরি হয়েছে শোকাবহ পরিস্থিতি। শোকে মুহ্যমান রাষ্ট্রীয় নেতা থেকে শুরু করে বিভিন্ন অঙ্গনের তারকারাও। তবে ৩৪ বছর আগে বিতর্কিত এক গোলের মাধ্যমে ইংল্যান্ডকে বিশ্বকাপ থেকে বের করে দেওয়া ম্যারাডোনার প্রতি ক্ষোভটা এখনও রয়ে গেছে শিলটনের।

ডেইলি মেইলকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, এটা আমাকে বছরের পর বছর পুড়িয়েছে। মানুষ বলে, বলটা আমার ক্লিয়ার করা উচিত ছিল কারণ ম্যারাডোনা আমার চেয়ে অনেক খাটো ছিল। কিন্তু সে এটা যেকোনোভাবেই করতো। হেড করতে পারবে না জেনেই সে হাত দিয়ে গোলটা করেছে।

শিলটন আরও বলেন, আমার সবচেয়ে খারাপ লাগে এটা ভেবে যে, সে কখনও এজন্য মাফ চায় নি। যে কোনো পর্যায়ে, যে কোনো সময়ে সে স্বীকার করতে পারতো যে, সে প্রতারণা করেছে এবং তার জন্য সে দুঃখিত। বরং সে এটাকে ‘হ্যান্ড অব গড’ বলে ভিন্ন একটা সংজ্ঞা দিয়েছে যেটা আসলে কোনোভাবেই উচিত হয়নি।

‘এটা নিশ্চিত যে সে গ্রেট ফুটবলার ছিল। তবে দুঃখজনকভাবে তার মধ্যে স্পোর্টসম্যানশিপ ছিল না।’

এর আগে ম্যারাডোনার মৃত্যুর পর টুইটারে ম্যারাডোনাকে ‘প্রশ্নাতীতভাবেই সর্বকালের সেরা ফুটবলার’ হিসেবে অভিহিত করেন শিলটন। তবে ডেইলি মেইলকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি জানিয়েছেন, বছরের পর বছর ধরে তারা ম্যারাডোনার মুখ থেকে ‘স্যরি’ শব্দটা শোনার জন্য অপেক্ষা করেছেন। ‘৮৬ বিশ্বকাপের সেই ম্যাচের পর ইংল্যান্ডের সব ফুটবলাররাই ম্যারাডোনাকে প্রতারক ভেবেছিলেন বলে মনে করেন শিলটন।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত